কলার খোসা ফেলে না দিয়ে কাজে লাগান

লাইফস্টাইল ডেস্ক: পাকা কিংবা কাঁচা, দুই অবস্থাতেই কলা আমাদের খাদ্যতালিকার অন্যতম উপাদান। পাকা কলা ফল হিসেবে আর কাঁচা কলা সবজি হিসেবে খেয়ে থাকি আমরা। আর কলার উপকারিতা আমরা সকলেই জানি। কলা পুষ্টিগুণ জোগানোর পাশাপাশি শরীরের নানা রোগ প্রতিরোধে বিশেষ ভূমিকা রাখে।

মজার ব্যাপার হল শুধু কলা নয়, কলার খোসারও রয়েছে নানা গুণাবলি। গৃহস্থালির কাজ থেকে শুরু করে শরীরচর্চা, কলার ভূমিকা অনস্বীকার্য। এবার দেখে নিই কলার খোসাকে আরও কী কী ভাবে কাজে লাগারো যায়।

খাদ্য: কাঁচা কলার খোসা ফেলে না দিয়ে কুচিয়ে ভাপিয়ে নিন। সঙ্গে অল্প কালোজিরা, গোল মরিচ গুঁড়া, পেঁয়াজ, রসুন ও তেল দিয়ে রান্না করে ফেলুন চমৎকার ভর্তা। এর সঙ্গে ছোট চিংড়িও যোগ করলে স্বাদে আসবে নতুন মাত্রা।

জুতার যত্ন: জুতার দাগ তুলতেও কলার খোসাকে ব্যবহার করা যায়। পাকা কলার খোসার ভেতরের অংশ জুতার উপরে কিছুক্ষণ ঘষুন । এরপর পাতলা কাপড় দিয়ে জুতাটি মুছে নিন। ব্যাস, আপনার জুতা চকচকে হয়ে যাবে।

দাঁতের উজ্জ্বলতা বৃদ্ধি: দাঁতের হলুদ ভাব কাটাতেও কলার খোসা কাজে লাগে। প্রতি দিন সকালে মুখ ধুয়ে কলার খোসার ভিতরের অংশ দাঁতে কিছুক্ষণ ঘষুন। এর পর টুথপেস্ট দিয়ে দাঁত ব্রাশ করুন। এই উপায়ে সপ্তাহ খানেকেই দাঁত হয়ে উঠবে ঝকঝকে সাদা।

ত্বকের যত্ন: ত্বকের যত্নে কলার খোসা অত্যন্ত উপযোগী। কলার খোসা বেটে তার সঙ্গে সামান্য মধু মিশিয়ে মুখে মাখুন। মুখের কালো দাগ বা বলিরেখা দূর হবে সহজেই। ত্বককে মসৃণ করতেও কলার খোসা অত্যন্ত দরকারি। শুষ্ক ত্বকে কলার খোসার ভিতরের অংশ লাগিয়ে রাখুন। কিছুক্ষণ পর শুকিয়ে এলে মুখ ধুয়ে ফেলুন। ত্বক মোলায়েম হবে।

বিডি সংবাদ টোয়েন্টিফোর ডটকম/

প্রিন্ট করুন

বিভাগ: লাইফস্টাইল