চতুর্দশ জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় দিবস-২০১৯

সাজ্জাতুল সবুজ, জবি প্রতিনিধি : ২০ এ অক্টোবর প্রতিষ্ঠার ১৪ বছর পূর্তি হলো জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ের। ২০০৫ সালের এদিনে ‘জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় আইনের’ মাধ্যমে কলেজ থেকে বিশ্ববিদ্যালয়ে আত্মপ্রকাশ করে এ প্রতিষ্ঠানটি।
বুড়িগঙ্গা নদীর তীরবর্তী এ বিশ্ববিদ্যালয় একসময় ছিল ব্রাহ্মদের স্কুল। শিক্ষার আলো ছড়িয়ে দিতে ১৮৫৮ সালে এর যাত্রা শুরু হয়। ১৮৭২ সালে এর নাম বদলে রাখা হয় জগন্নাথ স্কুল। পরে তা কলেজে উন্নীত হয়। কলেজ থেকে বিশ্ববিদ্যালয় কলেজে পরিবর্তিত হয় ১৯৪৯ সালে।
১৯২১ সালে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠা হলে জগন্নাথ কলেজের স্নাতক কার্যক্রম বন্ধ করে দেওয়া হয়। এ কলেজের শিক্ষক-শিক্ষার্থী বই-পুস্তক জার্নাল এমনকি বেঞ্চ-চেয়ার-টেবিলও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে স্থানান্তর করা হয়। যার স্বীকৃতিস্বরূপ ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে জগন্নাথ হল নামে একটি হলও প্রতিষ্ঠিত করা হয়েছে। সর্বশেষ এ প্রতিষ্ঠানটি ২০০৫ সালে জাতীয় সংসদে জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয় আইন-২০০৫ পাসের মাধ্যমে একটি পূর্ণাঙ্গ বিশ্ববিদ্যালয়ে রূপান্তরিত হয়। কিন্তু এত দিনেও শিক্ষার্থীদের জন্য কোনো আবাসনব্যবস্থা নেই। এ দাবিতে দফায় দফায় আন্দোলনের পর ছাত্রীদের জন্য বেগম ফজিলাতুন্নেছা নামে একটি ছাত্রী হল নির্মাণাধীন রয়েছে।
সারাদিন নানা আয়োজনের মধ্যে দিয়ে পালিত হবে এই দিনটি। আজ সকাল ৯ টায় জাতীয় সংগীতের মাধ্যমে শুরু হয় দিনব্যাপী আয়োজনের অনুষ্ঠানসূচী। এরপর বেলুন ও পায়রা উড়িয়ে দিনব্যাপী অনুষ্ঠানের শুভ উদ্বোধন করে ভিসি অধ্যাপক ড. মীজানুর রহমান। এরপর সকাল ৯.২০ এ বিশ্ববিদ্যালয়ের সকল বিভাগ ও ইন্সটিটিউটের অংশগ্রহণে র‍্যালী আয়োজন করা হয়। তাছাড়া বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্ট্রার, প্রক্টর সহ বিভিন্ন ডিপার্টমেন্টের শিক্ষক- শিক্ষিকা ও শিক্ষার্থীরা উপস্থিত ছিলেন।
দিনব্যাপী অনুষ্ঠানের মধ্যে রয়েছে নাট্যকলা বিভাগের আয়োজনে নাটক ‘লাল জমিন’, মিউজিক ডিপার্টমেন্টের আয়োজনে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান, ও বিশ্ববিদ্যালয়ের  নিজস্ব ব্যান্ড দল গুলোর আয়োজনে কন্সার্টের মাধ্যমে অমুষ্ঠানের সমাপ্তি হবে।
প্রিন্ট করুন

বিভাগ: ঢাকা,শিক্ষাঙ্গান