নির্বাচিত খবর

ফখরুলকে প্রাণোদনা প্যাকেজ ভালোভাবে পড়তে বললেন কাদের

বিডি সংবাদ টোয়েন্টিফোর ডটকম: প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ঘোষিত ৭২ হাজার ৭৫০ কোটি টাকার আর্থিক সহায়তার প্রাণোদনা প্যাকেজটি বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরকে ভালোভাবে পড়তে বললেন আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

তিনি বলেন, ‘এই প্যাকেজ ঘোষণা শুধু বিত্তবানদের স্বার্থকে সমর্থন করবে- এমন বক্তব্য যারা অর্বাচীনের মত  দিয়েছে সেটা ভিত্তিহীন। প্রাণোদনা শুধু বিত্তবান শ্রেণির জন্য নয়। বিত্তহীন সাধারণ মানুষের স্বার্থে এই প্যাকেজ প্রণোদনা ঘোষণা করা হয়েছে।’

সোমবার (৫ এপ্রিল) দুপুরে তার সরকারি বাসভবন থেকে এক ভিডিও বার্তায় মির্জা ফখরুলের প্রতি ইঙ্গিত করে এ আহ্বান জানান ওবায়দুল কাদের।

আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক বলেন, ‘বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর যদি প্রাণোদনার প্যাকেজটি ভালোভাবে পড়ে দেখেন তাহলে বুঝতে পারবেন- বিত্তবানদের চাইতে সাধারণ মানুষের স্বার্থই এখানে প্রাধান্য পেয়েছে। অগ্রাধিকার পেয়েছে। এদিক থেকে মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের উচিত ছিলো প্রধানমন্ত্রীকে ধন্যবাদ জানানো।’ব্রেকিংনিউজ

তিনি বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার প্রণোদনা ঘোষিত হওয়ার পর মির্জা ফকরুল যে মন্তব্য করেছেন সেটা ভিত্তিহীন, অযৌক্তিক এবং উদ্দেশ্যপ্রণোদিত। বিএনপি নেতারা যে কোনও পরিস্থিতিতেই রাজনৈতিক ফায়দা লোটার অপতৎপরতায় লিপ্ত থাকেন। প্রধানমন্ত্রীর পূর্ব নির্ধারিত সংবাদ সম্মেলনের আগের দিন তড়িঘড়ি করে বিএনপির প্রস্তাব উত্থাপনটি ছিলো উদ্দেশ্যপ্রণোদিত। ঠিক তেমনিভাবে প্যাকেজ ঘোষণার পর মির্জা ফখরুলের আগোছালো মন্তব্য ও বল্গাহীন প্রলাপ ছিলো চিরায়ত মিথ্যাচারে ভরপুর।’

সেতুমন্ত্রী বলেন, ‘পারস্পরিক দোষারোপ না করে ইতিবাচক মনোভাব নিয়ে দেশের এই সংকটে বিএনপিসহ দেশের সকল রাজনৈতিক দলকে ঐক্যবদ্ধভাবে জনগণের পাশে দাঁড়াতে হবে।’

আওয়ামী লীগের পক্ষ থেকে দলের নেতাকর্মীসহ সকল স্তরের জনগণকে মানবিক বিপর্যয়ের এই সময়ে এক প্লাটফরমে দাঁড়িয়ে অসহায় মানুষদের সহযোগিতার করারও আহ্বান জানান দলটির সাধারণ সম্পাদক। একইসঙ্গে ওবায়দুল কাদের করোনা ভাইরাসে সংক্রমিত হয়ে দেশে-বিদেশে যারা মৃত্যুবরণ করেছেন তাদের বিদেহী আত্নার শান্তি কামনা করেন এবং যারা চিকিৎসাধীন আছেন তাদের দ্রুত আরোগ্য কামনা করেন।

এসময় গণপরিবহন ১৪ এপ্রিল পর্যন্ত বন্ধ থাকবে জানিয়ে সড়কমন্ত্রী বলেন, ‘সাধারণ ছুটি বর্ধিত করার কারণে গণপরিবহনেরও বন্ধ বাড়ানো হয়েছে। তবে জরুরি সেবা,পণ্যবাহী যানবাহন,কাভার্ডভ্যান, ট্রাক চলাচল করবে। কিন্তু পণ্যবাহী পরিবহণে কোনভাবেই যাত্রী চলাচল করতে পারবে না।’

প্রিন্ট করুন

বিভাগ: রাজনীতি