নির্বাচিত খবর

বাংলার প্রথম ত্রিমাত্রিক চলচ্চিত্র অলাতচক্রের শুটিং শেষ

বিনোদন ডেস্কঃ বাংলার প্রথম ত্রিমাত্রিক চলচ্চিত্র অলাতচক্রের শুটিং শেষ হয়েছে গত বছরের মাঝামাঝিতে। এই ছবিতে অভিনয় করেছেন দেশ বরেণ্য অভিনেত্রী জয়া আহসান এবং অভিনেতা আহমেদ রুবেল। পোস্ট প্রোডাকশন শেষ হবার পথে। চলছে দেশে বিদেশে বিভিন্ন হাই প্রোফাইল চলচ্চিত্র উৎসবে পাঠানোর আয়োজন; কিন্তু এই চলচ্চিত্রের জন্য দিনরাত হাড়ভাঙ্গা পরিশ্রম আর আর মেধা খরচ করেও কোন পারিশ্রমিক পাইনি এখন পর্যন্ত। চলচ্চিত্রটি সরকারি অনুদানে নির্মিত হয়েছে সুতরাং সরকারের কাছ থেকে বাজেট পাশ করবার সময় আমি যে ডিপার্টমেন্টে কাজ করেছি তার জন্যও বাজেট করানো হয়েছে নিশ্চই। আমি যতদূর জানি আমাদের মাননীয় প্রধানমন্ত্রী মজুরের শ্রমের মূল্য পরিশোধের ব্যাপারে যথেষ্ট তৎপর তাই আমার বিশ্বাস আমার জন্য অবশ্যই উপযুক্ত অর্থনৈতিক মূল্য বরাদ্ধ ছিল সরকারের সংশ্লিষ্ট তহবিল থেকে। কিন্তু সে অর্থ আমার কাছে এখনো কেন পৌছায়নি আমার জানতে ইচ্ছা করে এবং সেটা জানতে চাইবার যথেষ্ট অধিকার আমার আছে বলে আমি মনে করি। অলাতচক্রের একটা বাজেটের কপি আমার কাছে আছে সেখানে আমার জন্য যে অর্থ কাগজে কলমে বরাদ্ধ তার দশ ভাগের এক ভাগও আমাকে দেয়া হয়নি। প্রথম লট শুটিং শেষে আমাকে মাত্র দুইশত টাকা হাতে ধরিয়ে দিয়ে বাসায় পাঠানো হয়। আশা করেছিলাম দ্বিতীয় লট শেষে হয়ত আমাকে আমার পাওনা বুঝিয়ে দেয়া হবে। দ্বিতীয় লট শেষে দেয়া হয়েছিল মাত্র দুই হাজার টাকা। এরপর আর কোন অর্থ আমাকে দেয়া হয়নি। পরিচালক হাবিবুর রহমানের কাছে বার বার টাকা চেয়েও মেলেনি এক কানা করি । উনার সাথে দেখা হলে উনি মদ খাবার অফার করেন। টিমের অনেকেই সেই অফারটা গ্রহণ করলেও আমি করতে পারিনা। আমি শারীরিকভাবে অসুস্থ; আমার ধারণা মদ আমাকে সুস্থতা দিবেনা এবং দেবার কথাও না। আমি মদ খেতে চাইনা কাজের ন্যায্য পারিশ্রমিক চাই। আমি অলাতচক্রে কাজ করেছিলাম আমার সমূহ উন্নতির জন্য মদ খেয়ে মাতাল হবার জন্য না।

প্রিন্ট করুন

বিভাগ: বিনোদন