বিমান ভ্রমণে যেসব খাবার খাবেন না

স্বাস্থ্য ডেস্ক: আকাশপথে যাত্রার পূর্বে কার্বোনেটেড বেভারেজ যেমন কোকাকোলা, সোডা ও বিয়ার ইত্যাদি এড়িয়ে যাওয়াই বুদ্ধিমানের কাজ। আকাশপথে বাতাসের চাপ পরিবর্তন হওয়ায়, এ ধরনের পানীয় পান করলে ওড়ার পর থেকে অস্বস্তি হতে পারে। এমনকি চা কফিও একই কাজ করতে পারে। তাই এগুলো বর্জন করাই বাঞ্চনীয়।

আকাশপথে ভ্রমণের ক্ষেত্রে অনেক কিছুই হয়তো আপনার জানা। কিন্তু কোন খাবারগুলো এ সময় এড়িয়ে যাওয়া ভালো তা জানেন কি? যদি জানা না থাকে তবে জেনে নিন এখনই। এতে ভ্রমণ হবে ঝামেলাহীন ও আরামদায়ক…

তেল-মসলাযুক্ত খাবার:

ফেঞ্চ ফ্রাই, বার্গার, চিকেন ফ্রাই ইত্যাদি বিকেলের নাশতা হিসেবে মুখরোচক হলেও আকাশপথে ভ্রমণের আগে এ ধরনের খাবার এড়িয়ে যাওয়া শ্রেয়। এ ধরনের খাবার হজম হতে সময় লাগে বেশি। ৩৫ হাজার ফুট উঁচুতে হজমক্রিয়া আরও ধীর হয়ে যায়। ফলে যাত্রাপথে অস্বস্তি শুরু হয়ে আপনার যাত্রার আনন্দই নষ্ট করে দিবে।

তরল পানীয়:

কার্বোনেটেড বেভারেজ যেমন কোকাকোলা, সোডা ও বিয়ার ইত্যাদি এড়িয়ে যাওয়াই বুদ্ধিমানের কাজ। আকাশপথে বাতাসের চাপ পরিবর্তন হওয়ায়, এ ধরনের পানীয় পান করলে উড়ার পর থেকে অস্বস্তি হতে পারে। এমনকি চা কফিও একই কাজ করতে পারে। তাই এগুলো বর্জন করাই বাঞ্চনীয়।

চিনিবিহীন চুইংগাম বা চকোলেট:

যারা ডায়েট করছেন বা ডায়াবেটিস আছে তারা হয়তো চিনিবিহীন যেকোনো খাবার বেছে নিবেন। হতে পারে সেটা চুইংগাম বা চকোলেট। কিন্তু আকাশপথে যাত্রার আগে এগুলোও এড়িয়ে যাওয়া ভালো। কেননা, এ ধরনের খাবার উপরে ওঠার পর পেটে গ্যাস হওয়ার সম্ভাবনা তৈরি করে। তাই যাত্রাপথে এগুলো এড়িয়ে যাওয়া উচিত।

প্রিন্ট করুন

বিভাগ: স্বাস্থ্য