রাজশাহীতে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধুর ৪৪ তম শাহাদত বার্ষিকী পালন

বিডি সংবাদ টোয়েন্টিফোর ডটকম: রাজশাহীতে আজ যথাযথ মর্যাদা ও ভাবগাম্ভীর্যের সাথে স্বাধীনতার মহান স্থপতি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৪২ তম শাহাদাত বার্ষিকীতে ‘‘জাতীয় শোক দিবস’’ পালন করা হয়েছে। আজ সূর্যোদয়ের সাথে সাথে সরকারি, আধা-সরকারি, স্বায়ত্তশাসিত প্রতিষ্ঠান, শিক্ষা প্রতিষ্ঠান ও বেসরকারি ভবনসমূহে জাতীয় পতাকা অর্ধনমিতভাবে উত্তোলন করা হয়। সকালে জেলা প্রশাসনের আয়োজনে নিউ ডিগ্রি কলেজ প্রাঙ্গন হতে একটি শোক র‌্যালি জেলা পরিষদে গিয়ে শেষ হয়। র‌্যালিতে আ লিক তথ্য অফিসের কর্মকর্তা কর্মচারী অংশগ্রহণ করেন। র‌্যালি শেষে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতিতে মাল্যদান ও পুষ্পস্তবক অর্পণ করা হয়।

একাডেমির মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত আলোচনা সভায় বক্তাগণ বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের বর্ণাঢ্য জীবনীর উপর আলোকপাত করেন। তাঁরা বলেন, এ মহান নেতা এ দেশের মানুষের মুক্তি, কল্যাণ ও স্বাধীনতার জন্য যে কষ্ট, অন্যায় ও জেল-জুলুম সহ্য করেছেন তার দৃষ্টান্ত ইতিহাসে বিরল। বক্তাগণ বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলা গড়তে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ২০২১ ও ২০৪১ সালের ভিশন বাস্তবায়নে সরকারের উন্নয়নমুখী কার্যক্রমকে সফল করতে নিজ নিজ অবস্থান থেকে দায়িত্বশীল হবার আহ্বান জানান।

জেলা প্রশাসক মোঃ হামিদুর হক এর সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় সিটি মেযর এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন প্রধান অতিথি হিসেবে এবং বিভাগীয় কমিশনার নূর-উর রহমান, ডিআইজি (রাজশাহী রেঞ্জ) একেএম হাফিজ আক্তার, পুলিশ সুপার মো. শহীদুল্লাহ, বীর মুক্তিযোদ্ধা ডা. মো. আব্দুল মান্নান ও মো. হামিদুল বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তৃতা করেন।
সভায় বঙ্গবন্ধুর ‘‘ অসমাপ্ত আত্মজীবনী’’ ও ‘‘কারাগারের রোজনামচা” থেকে পাঠ করে শোনানো হয়।

এসময় বিভিন্ন প্রতিযোগিতায় বিজয়ীদের মধ্যে পুরস্কার, যুব ঋণের চেক বিতরণ, প্রতিবন্ধী শিক্ষার্থীদের উপবৃত্তি ও বয়স্কদের ভাতা প্রদান করা হয়। এসময় শিল্পকলা একাডেমি প্রাঙ্গনে বঙ্গবন্ধুর স্মৃতি বিজড়িত চিত্র প্রদর্শনী এবং রক্তদান কর্মসূচির আয়োজন করা হয়।এছাড়া আজ মসজিদ, মন্দির, গীর্জা ও ধর্মীয় প্রতিষ্ঠান, শিশু সদন, সেফহোম এবং শিশু বিকাশ কেন্দ্রসমূহে বিশেষ দোয়া মাহফিলের আয়োজন ও উন্নতমানের খাবার পরিবেশন করা হয়। নগরীর লক্ষ্মীপুর মোড় ও শহীদ কামারুজ্জামান চত্বরে বঙ্গবন্ধুর জীবনীর ওপর প্রামাণ্য চিত্র প্রদর্শন করা হয়।

রাজশাহী বেতার বিশেষ অনুষ্ঠানমালা প্রচার করে এবং স্থানীয় সংবাদপত্রসমূহে দিবসের তাৎপর্য তুলে ধরে বিশেষ ক্রোড়পত্র প্রকাশ করে।আওয়ামী লীগ ও এর অঙ্গসংগঠন, রাজশাহী বিশ^বিদ্যালয়, রাজশাহী প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়, বিভিন্ন সরকারি, বেসরকারি প্রতিষ্ঠান নিজ নিজ কর্মসূচি পালনের মধ্য দিয়ে দিবসটি উদযাপন করে।

প্রিন্ট করুন

বিভাগ: রাজশাহী,সারাদেশ