নির্বাচিত খবর

লকডাউন শিথিলের শর্ত কঠোরভাবে পালনের আহ্বান কাদেরের

লকডাউন শিথিলের শর্তাবলী কঠোরভাবে পালনের আহ্বান জানিয়েছেন আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

তিনি বলেন, ‘জীবন ও জীবিকার মাঝে ভারসাম্য তৈরি, অর্থনীতির চাকা সচল রাখা, সামজিক শৃঙ্খলা ও সুরক্ষার স্বার্থে সরকার ইতিমধ্যে সাধারণ ছুটি না বাড়ানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে।’

ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘তবে এখানেই অবশ্য পালনীয় কিছু শর্ত থাকছে। যেমন- স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলা ও সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখা। মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ জরুরি কিছু নির্দেশনাসহ প্রজ্ঞাপন জারি করেছে। আমি দেশবাসীকে বিশেষ করে সরকারি-বেসরকারি খাতসহ সকলকে শর্তাবলী কঠোরভাবে প্রতি পালনের অনুরোধ জানাচ্ছি।’

বৃহস্পতিবার ( ২৮ মে) এক ভিডিও বার্তায় তিনি এসব আহ্বান জানান।

ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘জনস্বার্থে দেয়া সরকারের এ ছাড় ফ্রি স্টাইলে অপপ্রয়োগ করলে হিতে বিপরীত হওয়ার সমূহ আশঙ্কা থেকে যায়। এখন আমাদের উচিত ধর্ম-বর্ণ, পেশা ভেদে অদৃশ্য শত্রু মোকাবেলা করা। করোনা আমাদের কারো বন্ধু নয়।। কাজেই এই সংকটকে পুঁজি করে রাজনৈতিক ফায়দা তোলার কৌশল হবে আত্মঘাতি।’

তিনি বলেন, ‘করোনায় যুক্তরাষ্ট্রের মৃতের সংখ্যা ১ লাখ ছাড়িয়ে গেছে। যুক্তরাজ্যে সংক্রকম ও মৃতের সংখ্যা উদ্বেগ জনক পর্যায়ে। এমন পরিস্থিতিতেও যুক্তরাষ্ট্র-যুক্তরাজ্য বিশ্বের বিভিন্ন দেশ লকডাউন শিথিল করেছে। কোথাও কোথাও স্বাভাবিক জীবন যাত্রা শুরু করেছে। আমাদের পার্শ্ববর্তী দেশ ভারত ক্ষতিগ্রস্থ ১০ টি দেশের তালিকা থেকেও অর্থনীতির স্বার্থে লকডাউন শিথিল করেছে।’

গণপরিবহন চলাচলের বিষয়টি স্পষ্ট করে সড়কমন্ত্রী বলেন, ‘গুরুত্বপূর্ণ বিষয় হচ্ছে সরকার গণপরিবহন চালুর বিষয়ে ইতোমধ্যে সিদ্ধান্ত নিয়েছে। আমি পরিবহন মালিক ও শ্রমিক সংগঠনগুলো বিআরটিএসহ বসে আলাপ-আলোচনা করে একটি পরিকল্পনা গ্রহণের অনুরোধ করছি। গণপরিবহন পরিচালনায় যাত্রী, পরিবহন চালক, শ্রমিক সুরক্ষায় সুনির্দিষ্টভাবে সিদ্ধান্ত নিতে হবে।স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে হবে। সবাইকে মনে রাখতে হবে, এ ছাড় যেন সঙ্কটকে আরও ঘনীভূত না করে। মালিক-শ্রমিক যাত্রীসাধারণ সকলের দায়িত্বশীলতার পরিচয় দিতে হবে।’

তিনি বলেন, ‘আগামীকাল পরিবহন মালিক শ্রমিক সংগঠন সমূহকে নিয়ে মিটিং করে বিষয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নিতে, আমি বিআরটিএকে মন্ত্রণালয় থেকে নির্দেশনা দিয়েছে। করোনা পাশাপাশি সড়ক দুর্ঘটনায় মৃত্যুর মিছিল দেখতে না হয় সেজন্য আমি সকলকে নিজ নিজ দায়িত্ব পালনের আহ্বান জানাচ্ছি।’

আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক বলেন, ‘প্রতিযোগিতামূলক বিশ্বে জীবন-জীবিকার মাঝেসাজে সাযুজ্য বিধানের যে প্রয়াস চলছে তার থেকে বাংলাদেশে বিচ্ছিন্ন থাকতে পারে না। আমাদের প্রধানমন্ত্রী দেশরত্ন শেখ হাসিনা বিশেষজ্ঞদের সাথে আলোচনা করে সার্বিক পরিস্থিতি পর্যালোচনা করেই সিদ্ধান্ত নিচ্ছে। তার সাহসী ও মানবিক নেতৃত্বে আমরা ইতিপূর্বে সংকট থেকে উত্তরণ লাভ করেছি। এই সংকট থেকেও উত্তরণ লাভ করবো। ইনশাআল্লাহ।’

ব্রেকিংনিউজ/

প্রিন্ট করুন

বিভাগ: রাজনীতি