ইয়েমেনে সৌদি জোটের হামলা, চারটি ড্রোন ধ্বংস

0 145

ইয়েমেনের রাজধানী সানায় হুতিদের ব্যারাক ও সামরিক স্থাপনায় হামলা চলিয়েছে সৌদি জোটের নেতৃত্বাধীন বাহিনীর যুদ্ধবিমান। রবিবার ভোরে এসব হামলা চালানো হয় বলে সৌদি আরবের রাষ্ট্রীয় গণমাধ্যম আল আরাবিয়ার প্রতিবেদনে জানানো হয়েছে।

স্থানীয় সূত্রের উদ্ধৃতি দিয়ে আল আরাবিয়া আরও জানিয়েছে, জোট বাহিনী সানার উত্তরে আল দেলমি বিমান ঘাঁটিতে হুতিদের চারটি ড্রোন ধ্বংস করেছে। তবে তাৎক্ষণিকভাবে জোট বাহিনীর পক্ষ থেকে খবরটি নিশ্চিত করা হয়নি। একদিন আগেও সানার দুটি এলাকায় বিমান হামলা চালিয়েছিল সৌদি জোট।

এদিকে বৃহস্পতিবার হুতিরা দাবি করেছিল, তারা ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র ও ড্রোন ব্যবহার করে সৌদি আরবের রাজধানী রিয়াদের ‘গুরুত্বপূর্ণ লক্ষ্যে’ হামলা চালিয়েছে। তার পাল্টা পদক্ষেপ হিসেবেই সৌদি জোট সানায় হুতিদের সামরিক অবস্থান লক্ষ্য করে হামলা চালাচ্ছে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

যদিও বৃহস্পতিবার রিয়াদে হামলা হওয়ার কথা নিশ্চিত করেনি জোট। শুধু বলেছে, সৌদি আরবের উদ্দেশ্যে ছোড়া ব্যালিস্টিক ক্ষেপণাস্ত্র ও বিস্ফোরক-বোঝাই ড্রোনকে বাধা দিয়ে সেগুলো ধ্বংস করেছে তারা।

গত প্রায় এক বছর ধরে সানায় বোমাবর্ষণ করা থেকে অনেকটাই বিরত ছিল সৌদি জোট। গত বছরের সেপ্টেম্বরে হুতিদের সঙ্গে পরোক্ষ আলোচনা শুরু করার পর থেকে এমন অবস্থান নিয়েছিল তারা।

২০১৫ সালে ইয়েমেনের গৃহযুদ্ধে হস্তক্ষেপের করে যুদ্ধের প্রধান একটি পক্ষ হয়ে ওঠে সৌদি জোট। ইয়েমেনের যুদ্ধে এ পর্যন্ত এক লাখ লোক নিহত হয়েছে এবং এ যুদ্ধ বিশ্বের সবচেয়ে ভয়াবহ মানবিক সঙ্কট তৈরি করেছে বলে ভাষ্য জাতিসংঘের।

সৌদি সমর্থিত ইয়েমেনের সুন্নি প্রেসিডেন্ট আব্দ রাব্বু মনসুর হাদির সরকারকে ২০১৪ সালে ক্ষমতা থেকে উচ্ছেদ করে রাজধানী সানাসহ দেশটির অধিকাংশ শহর দখল করে নেয় ইরান সমর্থিত শিয়া হুতি বিদ্রোহীরা। হাদিকে ফের ক্ষমতায় বসানোর চেষ্টায় ইয়েমেনের গৃহযুদ্ধে হস্তক্ষেপ করে পশ্চিমা দেশগুলোর সমর্থিত সৌদি আরবের নেতৃত্বাধীন আরব জোট বাহিনী।

Leave A Reply

Your email address will not be published.