এফবিআই’র সার্ভার থেকে হাজার হাজার ভুয়া মেইল, সাইবার হামলার আশঙ্কা

12

মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের কেন্দ্রীয় গোয়েন্দা সংস্থা এফবিআই’র সার্ভার থেকে হাজার হাজার ভুয়া ই-মেইল পাঠানোর ঘটনা তদন্ত করছে গোয়েন্দা সংস্থাটি। একই সঙ্গে সম্ভাব্য সাইবার আক্রমণের ব্যাপারে সতর্ক করেছে এফবিআই। সংবাদমাধ্যম বিবিসির প্রতিবেদনে এ কথা জানানো হয়েছে।

এফবিআই বলছে, স্থানীয় সময় গতকাল শনিবার সকালে ঘটে যাওয়া এ (ভুয়া ই-মেইল পাঠানোর) ঘটনা একটি ‘চলমান পরিস্থিতি’। তবে, এর বেশি কিছু সংস্থা থেকে জানানো হয়নি।

ভুয়া ই-মেইলটির উৎসস্থল যুক্তরাষ্ট্রের হোমল্যান্ড সিকিউরিটি বলে প্রেরকের ঠিকানায় উল্লেখ আছে।

যুক্তরাষ্ট্রের হোমল্যান্ড সিকিউরিটি দাবি করছে, এ ধরনের একটা হুমকি আসতে পারে, সে ব্যাপারে তারা সতর্ক করেছিল। তারা যে সতর্কবার্তা দিয়েছিল, সেটার শিরোনাম ছিল—‘আর্জেন্ট : থ্রেট অ্যাক্টর ইন সিস্টেম’।

অলাভজনক সংস্থা স্প্যামহাউস বলছে, ই-মেইলগুলোতে প্রাপকদের উদ্দেশে বলা হয়েছে, তারা একটি ‘স্পর্শকাতর ধারাবাহিক হামলার’ লক্ষ্য হতে যাচ্ছেন। আর, এসব হামলা করবে ‘ডার্ক ওভারলোড’ নামের একটি চাঁদাবাজ গোষ্ঠী।

স্প্যামহাউস টুইট করে বলছে, ‘তারা অনেক বিঘ্ন ঘটাচ্ছে, কারণ এ মেইলগুলো সত্যিকার অর্থে এফবিআই অবকাঠামোর ভেতর থেকে আসছে।’

স্প্যামহাউস এটাও বলছে, মেইল কে পাঠিয়েছে তার নাম যেমন নেই, সেখানে কোনো যোগাযোগের তথ্যও দেওয়া হয়নি।

যুক্তরাষ্ট্রের সংবাদমাধ্যমে বলা হয়েছে, এক লাখের বেশি মেইল পাঠানো হয়েছে।

এক বিবৃতিতে শনিবার এফবিআই বলেছে, তারা সকালের ভুয়া ই-মেইল সম্পর্কে অবগত আছে। এসব ইমেইল @ic.fbi.gov অ্যাকাউন্ট থেকে পাঠানো হয়েছে।

এফবিআই বলছে, সমস্যাটা ধরতে পারার সঙ্গে সঙ্গে, যে হার্ডওয়্যার ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে, সেটি অফলাইন করা হয়েছে এবং জনগণকে বলা হয়েছে—তারা যেন অজানা কোনো প্রেরকের (সেন্ডার) কাছ থেকে ই-মেইল পেলে সতর্ক থাকে। একই সঙ্গে যদি সন্দেহজনক কোনো কার্যকলাপ চোখে পড়ে, সেটা সরকারকে জানাতে হবে।

তবে, এটা এখনও স্পষ্ট নয় যে—হ্যাকারেরা এটা করেছে, না-কি এমন কোনো ব্যক্তি করেছে, যার এফবিআইয়ের সার্ভারে প্রবেশাধিকার রয়েছে।

x