ওই সময় মাঠে থাকলে হার্ট অ্যাটাক হতো : পাপন

২১৭
সংবাদ সম্মলেন আইসিসি চেয়ারম্যান গ্রেগ বার্কলের সঙ্গে বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন। ছবি : সংগৃহীত

শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে আজ দিনের শুরুটা খুব বাজে হয় বাংলাদেশের। দলীয় ২৪ রানে ৫ উইকেট হারিয়ে ফেলে বাংলাদেশ। ওই সময় মাঠে ছিলেন না বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন। আইসিসির চেয়ারম্যান গ্রেগ বার্কলের সঙ্গে তিনি ছিলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কার্যালয়ে। পরে ফিরে এসে জানালেন, ওই বিপর্যয়ের সময় মাঠে থাকলে হার্ট অ্যাটাক হয়ে যেত তাঁর।

আজ বিকেলে সংবাদমাধ্যমের সামনে পাপন বলেন, ‘ওই সময় থাকলে হার্ট অ্যাটাক হতো, আল্লাহর রহমত আমি ছিলাম না। আমি তো প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে ছিলাম তখন। প্রধানমন্ত্রী জিজ্ঞেস করলেন, কি অবস্থা খেলার? আমি বললাম, আপা সাহস নেই দেখার। যতক্ষণ মাঠে না যাব, আমি দেখছি না। মাঠে এসে লিফটের সামনে দাঁড়িয়ে দেখলাম এই অবস্থা। তখন তো স্বাভাবিকভাবে একটা শক (পেলাম)। তবে যেভাবে মুশফিক ও লিটন ব্যাট করেছে, বিশেষ প্রশংসা ওদের প্রাপ্য।’

দুর্দান্ত ব্যাটিংয়ের জন্য লিটন ও মুশফিককে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা অভিনন্দন জানিয়েছেন। এ ছাড়া দিনের খেলা অনুসরণ করেছেন প্রধানমন্ত্রী নিজেও।

এ ব্যাপারে নাজমুল হাসান বলেন, “আমাদের প্রধানমন্ত্রী ক্রীড়াপ্রেমী, বিশেষ করে ক্রিকেট। আজকে তাঁর মেডিকেল অ্যাপয়নমেন্ট ছিল, তার পরও ঠিক করেছিলেন, আগে আইসিসি চেয়ারম্যানের সঙ্গে দেখা করবেন। আজ অনেক সময় দিয়েছেন তিনি, অনেক আগ্রহ দেখিয়েছেন। আমরা যখন ফিরছিলাম, লিটন সেঞ্চুরি করল, যে মুহূর্তে সে সেঞ্চুরি করল তখনই প্রধানমন্ত্রী আমাকে ম্যাসেজ পাঠালেন, ‘লিটনকে অভিনন্দন।’ আমি শুরুতে দেখতে ভয় পাচ্ছিলাম, গত টেস্টে লিটন অল্পের জন্য হাতছাড়া করেছিল (সেঞ্চুরি)। তার পর আপার আরেকটি ম্যাসেজ দেখলাম, ‘মুশফিককে অভিনন্দন।’ গ্রেগের (বার্কলে) জন্যও নিশ্চিতভাবে এটা দারুণ অভিজ্ঞতা। আমরা এরকমই ক্রিকেটপ্রেমী জাতি।”

Comments are closed.