ওয়েবসাইট নকলের অভিযোগে আরও দুজন গ্রেফতার

0 158

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট: বিভিন্ন জাতীয় পত্রিকার ওয়েবসাইটের আদলে নকল ওয়েবসাইট তৈরির অভিযোগে আরও দুজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে বলে জানিয়েছে করেছে র‍্যাব। বুধবার (২৮ নভেম্বর) রাজধানীর মোহাম্মদপুর ও গাজীপুর এলাকা থেকে তাদের গ্রেফতার করা হয়।

বৃহস্পতিবার (২৯ নভেম্বর) সকালে এক ক্ষুদে বার্তায় বিষয়টি জানিয়েছে র‍্যাব সদর দফতরের মিডিয়া বিভাগ।

র‍্যাবের গণমাধ্যম শাখার সহকারী পরিচালক মিজানুর রহমান ব্রেকিংনিউজকে জানান, গ্রেফতারকৃত দুই ব্যক্তি বিভিন্ন জাতীয় পত্রিকার ওয়েবসাইট তৈরি করে সেখানে মিথ্যা ও বানোয়াট সংবাদ প্রচার করতেন। গ্রেফতারকালে তাদের কাছ থেকে ল্যাপটপ ও মোবাইল জব্দ করা হয়।

এ বিষয়ে বৃহস্পতিবার (২৯ নভেম্বর) সকাল ১১ টায় রাজধানীর কারওয়ান বাজারে র‍্যাবের মিডিয়া সেন্টারে এক সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হবে। সেখানে বিস্তারিত তথ্য জানানো হবে।

এর আগে একই অভিযোগে গত ২৪ নভেম্বর বিমানবন্দর এলাকা থেকে এনামুল হক নামে পিএইচডি গবেষককে গ্রেফতার করেছিল বলে দাবি করে র‍্যাব। এনামুল দক্ষিণ কোরিয়ায় একটি বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষক ছিলেন। তাকে গ্রেফতারের পর র‍্যাব দাবি করেছিল, তিনি মূলত এই জাল ওয়েবসাইট তৈরির হোতা। তিনি ডোমেইন কিনতেন এবং পরে সেগুলোতে বিভিন্ন জাতীয় পত্রিকার ওয়েবসাইট খুলে মিথ্যা ও প্রতারণামুলক খবর প্রচার করতেন। কিন্তু র‍্যাব তাকে গ্রেফতার দেখানোর কয়েকদিন আগে থেকে এনামুল নিখোঁজ ছিলেন বলে দাবি পরিবারের।

এনামুলের পরিবারের দাবি, তিনি সেদিন দক্ষিণখান এলাকায় তার এক বন্ধুর বাসা থেকে কোরিয়া যাওয়ার জন্য বের হয়েছিলেন। তাকে তার এক বন্ধু বিমানবন্দর পর্যন্ত এগিয়েও দিয়ে আসে কিন্তু এরপর থেকে তার ফোন বন্ধ পান তারা। সেদিন থেকে এনামুল নিখোঁজ ছিল। এরপর একদিন তাকে অপহরণ করা হয়েছে বলে একটি ফোন আসে এবং সেই ফোনে অপহরণকারীরা মুক্তিপন দাবি করলে তার পরিবার এক লাখ টাকাও দিয়েছিল।

এনামুলের ভাই কামরুজ্জামান মাসুদ ব্রেকিংনিউজকে জানিয়েছিলেন, তার ভাই দক্ষিণ কোরিয়ার কিওংপুক ন্যাশনাল ইউনিভার্সিটিতে (কেএনইউ) পিএইচডি গবেষণারত। এর আগে তিনি বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয় থেকে পড়াশোনা শেষ করেন এবং সেখান থেকে শিক্ষা বৃত্তি নিয়ে দক্ষিণ কোরিয়ায় চলে যান। সম্প্রতি তিনি দেশে ফিরে পাবনা থেকে তার শ্বশুরবাড়ি জামালপুরে স্ত্রীকে নিয়ে যান এবং সেখান থেকে বিদেশ যাওয়ার উদ্দেশে আশকোনায় এক বন্ধুর বাসায় উঠেন। পরে কোরিয়া রওনা হওয়ার দিন বাসা থেকে বের হয়েছিলেন। এরপর থেকে নিখোঁজ ছিলেন তিনি। বিষয়টি জানিয়ে তার পরিবারের পক্ষ থেকে দক্ষিণখান থানায় একটি সাধারণ ডায়েরিও করা হয়েছিল।

বিডি সংবাদ টোয়েন্টিফোর ডটকম/

Leave A Reply

Your email address will not be published.

x