কেন খাবেন খেজুর?

0 214

সারা বছরই পাওয়া যায় এমন ফলের মধ্যে খেজুর অন্যতম। মানব সভ্যতার ইতিহাসে সুমিষ্ট ফল হিসেবে খেজুরের গ্রহণযোগ্যতা পাওয়া যায়। বহু বছর পূর্ব থেকেই এর চাষাবাদ হয়ে আসছে। বিশেষত মরু এলাকায় এ ফল ভালো জন্মে। ফ্রুকটোজ ও গ্লাইসেমিক সমৃদ্ধ এ ফল অত্যন্ত সুস্বাদু।

খেজুরে রয়েছে অনেক উপকারিতা। রক্তে শর্করা বাড়ানো, চিনির বিকল্প হিসেবে খাওয়া ও শরীরে শক্তির যোগান দিতে খেজুরের জুড়ি নেই। খেজুর খেলে শরীরের ক্লান্তিও দূর হয়। এতে আছে প্রচুর ভিটামিন ‘বি’। যা মস্তিষ্কের কর্মক্ষমতা বাড়াতেও দারুণ সহায়ক।

খেজুরের পুষ্টি উপাদান সম্পর্কে পুষ্টিবিদরা বলেন, ৪টি বা ৩০ গ্রাম পরিমাণ খেজুরে ৯০ ক্যালোরি, ১ গ্রাম প্রোটিন, ১৩ মি.লি. গ্রাম ক্যালসিয়াম, ২ দশমিক ৮ গ্রাম ফাইবার থাকে।

আসুন পাঠক জেনে নিই- কেন খাবেন খেজুর:

* শক্তিবৃদ্ধিতে: খেজুর শারীরিক ও মানসিক শক্তি বাড়ায়। হজম শক্তি, যৌন শক্তি ও রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বৃদ্ধি করে। খেজুর ফুলের পরাগরেণু বন্ধ্যান্ত্ব দূর করে, শুক্রাণু বৃদ্ধি করে। খেজুর ও খেজুরের ফুল পরাগরেণু ডিএনএ’র গণগতমান বৃদ্ধি করে ও অণ্ডকোষের শক্তি বাড়ায়।

* হার্ট ভালো রাখতে: হার্টের সমস্যা দূরে রাখতে প্রতিদিন খেজুর খাওয়া জরুরি। গবেষণায় দেকা যায়, পুরো রাত খেজুর পানিতে ভিজিয়ে সকালে পিষে খাওয়ার অভ্যাস হার্টের রোগীর জন্য দারুণ কার্যকর।

* শরীরের দুর্বলতা দূর করতে: যাদের শরীরে দুর্বলতার লক্ষণ আছে তারা খেজুর খেলে তাৎক্ষণিক শরীরে শক্তি পাবেন।

* হজম ও রুচি বাড়াতে: হজম ও রুচি বাড়াতে খেজুরের তুলনা নেই। শিশুদের খেজুর খাওয়ালে তাদেরও রুচি বাড়ে। খেজুরে থাকা স্যলুবল ও ইনসলুবল ফাইবার ও বিভিন্ন ধরনের অ্যামিনো অ্যাসিড, যা সহজে খাবার হজমে সহায়তা করে।

* ক্যান্সার দূর রাখতে: মরণঘাতি ক্যান্সার থেকে নিরাপদ দূরত্বে থাকতে খেজুর গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে। খেজুর পাকস্থলি ও ক্যাভিটি ক্যান্সার থেকে শরীরকে মুক্ত রাখে।

* রক্তশূন্যতা দূর করতে: লৌহসমৃদ্ধ এই ফলটি রক্তশূন্যতা কাটাতে ব্যাপক কাজ করে। প্রতিদিন খেজুর খেলে দেহের আয়রনের অভাব পূরণ করে এবং রক্তস্বল্পতা রোগের হাত থেকে শরীরকে রক্ষা করে।

* স্ট্রোকের ঝুঁকি কমাতে: খেজুরের মধ্যে প্রায় ৪০০ মিলিগ্রাম পটাসিয়াম থাকে, যা মানুষের স্ট্রোকের ঝুঁকি ৪০ শতাংশ পর্যন্ত কমাতে সহায়তা করে।

* উচ্চ রক্তচাপ নিয়ন্ত্রণে: যাদের উচ্চ রক্তচাপের সমস্যা আছে তারা পটাশিয়াম ও সোডিয়াম সমৃদ্ধ এ ফলটি খেলে উপকার পাবেন। কারণ এ ফল দেহের খারাপ কলেস্টোরল কমায় ও ভালো কলেস্টোরল বৃদ্ধি করে।

* কোষ্ঠকাঠিন্য দূর করতে: এ রোগ থেকে মুক্তি পেতেও খেজুর খুবই কার্যকর।

Leave A Reply

Your email address will not be published.