ক্রিকেট না কি বিজ্ঞাপনের চুক্তি, কোন পথে যাবেন সাকিব?

74
সাকিব আল হাসান। ছবি : সংগৃহীত

ঘুরে ফিরে আবারও আলোচনায় সাকিব আল হাসান। সম্প্রতি বেটউইনারের একটি প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে চুক্তি করে আলোচনার জন্ম দিয়েছেন তিনি। পরিস্থিতি এখন এমন যে, সাকিবকে হয় বিতর্কিত বিজ্ঞাপনের চুক্তি বেছে নিতে হবে নয়তো ক্রিকেট ক্যারিয়ার। একই সঙ্গে দুই নৌকায় পা রেখে চলতে পারবেন না বিশ্বসেরা অলরাউন্ডার।

সাধারণত বাণিজ্যিক কোনো প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে চুক্তি করার আগে ক্রিকেটারদের বিসিবির সঙ্গে আলোচনা করতে হয়। কিন্তু সাকিব বিসিবিকে না জানিয়েই, বেটউইনার নিউজ ডটকমের ওয়েবসাইটের ব্র্যান্ড অ্যাম্বাসেডর হিসেবে চুক্তি করেছেন। আর ওয়েবসাইটটি হলো, বেটিং সংস্থা বেট উইনারের অঙ্গপ্রতিষ্ঠান।

ক্রীড়াভিত্তিক কোনো প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে সাকিব চাইলে যুক্ত হতেই পারেন। কিন্তু সমস্যা হচ্ছে সাইটটি ওয়েবসাইটটি বেটউইনার ডটকমের অঙ্গ প্রতিষ্ঠান। আর এই বেটউইনার হচ্ছে অনলাইনে জুয়া খেলার মাধ্যম। এর মাধ্যমে যে কোনো ব্যক্তি চাইলেই আন্তর্জাতিক ক্রিকেট, ফুটবল থেকে শুরু করে যে কোনো খেলা নিয়েই জুয়া খেলতে পারেন।

বাংলাদেশের আইন ও বিসিবির রীতি অনুযায়ী জুয়া জাতীয় যে কোনো খেলাই দণ্ডনীয় অপরাধ। তাই জুয়ার কোনো প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে সাকিবের যুক্ত হওয়াটাও প্রশ্নের জন্ম দিয়েছে। এ ব্যাপারে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের অবস্থান স্পষ্ট। সাকিব হয় ক্রিকেট ক্যারিয়ার বেছে নেবেন নয়তো বিতর্কিত চুক্তিটি বেছে নেবেন। এখন সাকিব কোনটা বেছে নেন সেটাই দেখার অপেক্ষা।

আজ বৃহস্পতিবার বিসিবিপ্রধান নাজমুল হাসান পাপন স্পষ্ট করে জানিয়েছেন, চুক্তিটি বাতিল না করলে ক্রিকেটে জায়গা হবে না সাকিবের।

বিসিবিপ্রধান বলেছেন, ‘বেটিং সংক্রান্ত কোনো কিছুর সঙ্গে সম্পর্ক রাখলে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড, বাংলাদেশ ক্রিকেটের সঙ্গে তার কোনো সম্পর্ক থাকবে না। এখানে দ্বিতীয় চিন্তা করার কোনো সুযোগ নেই। বিসিবি প্রথম থেকে যে অবস্থায় ছিল, এখনো তাই আছে। তখনই আমি বলেছিলাম, এ ব্যাপারে জিরো টলারেন্স। বিসিবি কোনোভাবেই এটা গ্রহণ করবে না। যে কারণে আশরাফুলের মতো খেলোয়াড়কেও আমাদের বাদ দিতে হয়েছে।’

সভাপতি আরো বলেছেন, ‘এটা নিয়ে আলোচনার কিছু নেই। এটা আগে থেকেই সিদ্ধান্ত নেওয়া। এটা খুবই পরিষ্কার। ওরা বেটিং সাইটের “সারোগেট”, এ নিয়ে আমাদের কোনো সন্দেহ নেই। ওরা মূলত একটা বেটিং কোম্পানি যারা জুয়া, ক্যাসিনো, বেটিং এগুলো নিয়ে জড়িত। আপনারা বলতে পারেন এটা তো নিউজ পোর্টাল। কিন্তু বেটউইনার তো জুয়ার অংশ। আমরা বলেছি সম্পর্কই থাকতে পারবে না। সাকিব দেশের জন্য খেলবে নাকি বেটিংয়ে থাকবে এটা তার সিদ্ধান্ত। এখানে বোঝানোর কিছু নেই।’

x