ছুটিতে এসে কর্মস্থলে না ফিরে না ফেরার দেশে জুয়েল

348

মোহনপুর প্রতিনিধি: পরিবারের সাথে ঈদের আনন্দ ভাগাভাগি করতে বগুড়ার আদমদীঘি থানায় কর্মরত পুলিশ কনষ্টেবল জুয়েল হোসেন ছুটিতে। পরে স্ত্রী সাথে নিয়ে মোটরসাইকেল চালিয়ে রাজশাহী শহরে যাওয়ার পথে মোহনপুর উপজেলার রাজশাহী-নওগাঁ মহাসড়কের সাঁকোয়া পুরাতন ব্রীজ সংলগ্নে বিপরীত দিক থেকে ছেড়ে আসা বাস তার মোটর সাইকেলকে ধাক্কা দিলে ঘটনাস্থলে তার মৃত্যু হয়। এবং মূমুর্ষ অবস্থায় তার স্ত্রীকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজে পাঠানো হয়।

জানা গেছে, নওগাঁর মান্দা উপজেলা কুরকুটি গ্রামের মহিদুর রহমানের ছেলে জুয়েল হোসেন (৩২) (বিপি-৯১১১১৩৫৬১৩) বগুড়ার আদমদীঘি থানায় কর্মরত পুলিশ কনষ্টেবল হিসেবে কর্মরত ছিলেন। সে ঈদে ছুটিতে বাড়ী না আসতে পারলেও ঈদের পর গত ১৩ জুলাই হতে ১৯ জুলাই পর্যন্ত ৭ দিনের নৈমিত্তিক ছুটি মঞ্জুর হলে পরিবারের সাথে ঈদের আনন্দ ভাগাভাগি করার জন্য বাড়ীতে আসেন। এর মধ্যে শনিবার (১৬ জুলাই) পুলিশ সদস্য জুয়েল হোসেন তার স্ত্রী শারমিন সুলতানাকে নিয়ে দর্শনীয় স্থান উপভোগ করার লক্ষে মোটরসাইকেল যোগে রাজশাহীতে যাচ্ছিল।

পথিমাঝে বেলা টার দিকে রাজশাহী থেকে ছেড়ে আসা নওগাঁগামী নকশী শিশির স্পেশাল, ঢাকা মেট্রো-ব-১৪-৬১৮৭ একটি বাস মোহনপুর উপজেলা সাঁকোয়া নামক স্থানে পুলিশ সদস্যের মোটরসাইকেল ধাক্কা দিলে ঘটনাস্থলেই মৃত্যু হয়। এবং মুমূর্ষু অস্থায় তার স্ত্রী শারমিন সুলতানাকে উদ্ধার করে রাজশাহী মেডিকে কলেজে পাঠানো হয়। ছুটিতে এসে আর কর্মস্থলে না ফিরে না ফেরার দেশে চলে গেলেন জুয়েল হোসেন।

মোহনপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) তৌহিদুল ইসলাম বলেন, খবর পেয়ে ঘটনাস্থল থেকে পুলিশ সদস্যের লাশ উদ্ধার ও বাস জব্দ করা হয়েছে। নিহত পরিবারের সিদ্ধান্তক্রমে আমরা থানায় মামলা নিয়েছি। ঘাতক বাস চালককে গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলমান আছে।

x