‘ছেলেরা ফলো করতো তাই বাবা চাইতেন না টাইট পোশাক পরি’

0 39

বিনোদন ডেস্ক : বাবা অশোক চোপড়াকে নিয়ে মুম্বইয়ের এক সংবাদমাধ্যমকে সাক্ষাৎকার দিতে গিয়ে প্রথম মুখ খুললেন প্রিয়ঙ্কা চোপড়া। মুম্বাইয়ে এক সংবাদমাধ্যমকে সাক্ষাৎকার দিতে গিয়ে বলেছেন প্রিয়ঙ্কা, ‘বাবা চাইতেন না আমি শরীরের সঙ্গে লেগে থাকা টাইট পোশাক পরি।’

নিজের বক্তব্যকে স্পষ্ট করে তুলে ধরেছেন প্রিয়ঙ্কা, জানিয়েছেন তিনি ১২ বছর বয়সে আমেরিকা যান। “তখন আমি বাচ্চা মেয়ে। আমেরিকা থেকে যখন ফিরি ১৬ বছর। সম্পূর্ণ নারী। বাবা আমায় দেখে কী করবেন ভেবেই পাচ্ছিলেন না। তারপর এই হুকুম জারি করেন” যোগ করেন প্রিয়ঙ্কা।

প্রিয়ঙ্কার মা মধু চোপড়া এই প্রসঙ্গে সংবাদমাধ্যমকে তার বক্তব্য জানিয়েছেন। তিনি বলেছেন তার মেয়ে আমেরিকা থেকে এসে আঁটোসাঁটো পাশ্চাত্য পোশাক পরতে আরম্ভ করে।

“আমরা তখন রায়বরেলিতে থাকতাম। সেখানকার পরিবেশে এই পোশাক বেমানান ছিল। তাই ওর বাবা ওকে ও রকম পোশাক পরতে বারণ করে। আর আমার মেয়ে খুব ভাল ছিল। ও সঙ্গে সঙ্গে সেটা মেনে নেয়”, বুঝিয়ে দিয়েছেন প্রিয়ঙ্কার মা।

প্রিয়ঙ্কা বাবা সম্পর্কে বলতে গিয়ে জানান দেশে ফেরার পর তাকে স্কুলের ছেলেরা ‘ফলো’ করত। সেই দেখেই তার বাবা অমন পোশাক পরতে বারণ করেন। এর সঙ্গে বাবার ছোটবেলার কথাও মনে করেন প্রিয়ঙ্কা।

তিনি বলেন, “বাবা বলত, তুমি ভাল মন্দ ভুল ঠিক যাই কর না কেন আমায় এসে বলবে। আমি সেগুলো ঠিক করে দেব। তুমি ভাল না খারাপ বিচার করব না। আমি তো তোমার টিমের লোক”।

Leave A Reply

Your email address will not be published.