তারা পাপের ফল পাবে : সালমান

0 188

বিডি সংবাদ টোয়েন্টিফোর:  করোনাভাইরাসের দ্বিতীয় ঢেউয়ে দিশেহারা ভারত। সিনেমা ও টিভি শোর শুটিং স্থগিত রয়েছে। এসবের মধ্যেই আজ মুক্তি পেয়েছে সুপারস্টার সালমান খানের বহুল প্রতীক্ষিত সিনেমা ‘রাধে : ইয়োর মোস্ট ওয়ান্টেড ভাই’। করোনার কারণে খুব বেশি প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি পায়নি সিনেমাটি। তবে ৪০টির বেশি দেশে ডিজিটাল মাধ্যমে দেখা যাবে এ সিনেমা।

বড় বাজেটের এই সিনেমা বড় পর্দায় তেমন মুক্তি না পাওয়ায় লোকসান গুনতে হবে সালমানকে। এ কথা তিনি নিজেই জানিয়েছেন। কলকাতার আনন্দবাজার পত্রিকাকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে এ সুপারস্টার বলেন, সিনেমাটি ওটিটিতে রিলিজ করানোর একটাই কারণ, দর্শক যাতে নিরাপদে বাড়িতে বসে ছবিটা দেখতে পারেন।

 

সালমানের ভাষ্য, ‘লোকসান তো হবেই, কিন্তু তার ভার আমি মাথা পেতে নিয়েছি। সব ঝামেলা মিটে গেলে আবার হলে রিলিজ করাব।’

 

গেল বছর ভারতে যখন করোনা মহামারি বিরূপ প্রভাব ফেলেছিল, তখন ত্রাতার ভূমিকায় আবির্ভূত হয়েছিলেন সালমান খান। এ বছর ফের দেশটিতে করোনা ভয়াবহ রূপ ধারণ করেছে। এবারও সহায়তার হাত প্রশস্ত করেছেন সালমান।

 

কিছুদিন আগের খবর, কোভিড-আক্রান্তদের সহায়তায় ‘রাধে’ সিনেমার লভ্যাংশ ত্রাণ তহবিলে অনুদান দেবেন সালমান খান ও জি এন্টারটেইনমেন্ট। সালমান খান ফিল্মস ও জি যৌথভাবে ‘গিভইন্ডিয়া’র সঙ্গে ত্রাণ কার্যক্রম নিয়ে কাজ করছে। তারা কোভিড আক্রান্তদের জন্য চিকিৎসাসামগ্রী, অক্সিজেন সিলিন্ডার, কনসেনট্রেটর ও ভেন্টিলেটরসহ প্রয়োজনীয় সামগ্রী দিচ্ছে। এ ছাড়া এবার প্রায় ৫০ হাজার চলচ্চিত্রকর্মীকে সহায়তা করেছেন সালমান খান। দিচ্ছেন নগদ অর্থসহ রেশন।

 

‘রাধে’র লাভের অঙ্ক থেকে আপনি কোভিড রিলিফে দান করবেন? এমন প্রশ্নের জবাবে সালমান বলেন, ‘এই ফিল্ম থেকে আমার কোনো লাভ হবে না। হল রিলিজ হলে লাভ হতো। এখন উল্টো আমার পকেট থেকে টাকা যাবে। আগের বছরের মতো এই বছরও আমরা ফিল্ম ইন্ডাস্ট্রিতে পঁয়তাল্লিশ থেকে পঞ্চাশ হাজার কর্মীকে টাকা দেওয়ার ব্যবস্থা করেছি, যাতে কিছু দিন অন্তত ওঁদের সংসার চলে। আমার ভক্তরাও অনেক ভালো কাজ করছেন। নিজেদের খরচে অক্সিজেন কনসেনট্রেটর কিনে বিলি করেছেন।’

 

ভারতীয় গণমাধ্যমের খবর, করোনা মহামারিতেও সে দেশে ওষুধ ও অক্সিজেন নিয়ে কালোবাজারি হচ্ছে। এ প্রশ্ন তুললে আনন্দবাজার পত্রিকাকে সালমান খান বলেন, ‘আমার কাছে দিনে অজস্র মেসেজ আর কল আসে, অক্সিজেন সিলিন্ডার বা হাসপাতালে বেডের জন্য অনুরোধ করে। আমি কখনও একজনকে বঞ্চিত করে অন্যকে সাহায্য করি না। শুধু একটাই অনুরোধ সকলকে, লকডাউন, সুরক্ষাবিধি মেনে চলুন, যাতে আমরা তাড়াতাড়ি আবার স্বাভাবিক জীবনে ফিরে আসতে পারি। একটা ব্যাপার দেখলে মাথা ঠিক রাখতে পারি না, তা হল ওষুধ আর অক্সিজেন নিয়ে কালোবাজারি। যারা এটা করছে তারা পাপের ফল পাবে।’

 

প্রভু দেবা পরিচালিত ‘রাধে’ এ বছরের সবচেয়ে আলোচিত সিনেমা। এই সুপারস্টারকে সবশেষ ২০১৯ সালে ‘দাবাং থ্রি’ সিনেমায় দেখা গিয়েছিল। ‘রাধে’ সিনেমায় সালমান খানের নায়িকা দিশা পাটানি। এতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকায় দেখা যাবে রণদীপ হুদা ও জ্যাকি শ্রফকে।

 

Leave A Reply

Your email address will not be published.

x