দুর্গাপুরে স্ত্রীকে হত্যার পর গলায় দড়ি দিয়ে স্বামীর আত্মহত্যা

66
দুর্গাপুর প্রতিনিধি: স্ত্রীর পরকীয়া সন্দেহে দুর্গাপুরে স্ত্রীকে শ্বাসরোধ করে হত্যার পর গলায় দড়ি দিয়ে স্বামী আত্মহত্যা করেছে বলে ধারনা করছে এলাকাবাসী। ঘটনাটি ঘটেছে রাজশাহীর দুর্গাপুর উপজেলার ঝালুকা ইউনিয়নের কাঠালবাড়িয়া দক্ষিণপাড়া গ্রামে। ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে দূর্গাপুর থানা পুলিশ ও পুঠিয়া (সার্কেল) সহকারী পুলিশ সুপার ইমরান জাকারিয়া।
সিআইডির ক্রাইমসিন টিম ঘটনাস্থলে পৌছে আলামত সংগ্রহ করার পর পুলিশ স্বামী-স্ত্রীর মরদেহ উদ্ধার করবে বলে জানান দুর্গাপুর থানা পুলিশ।
এলাকাবাসী সূত্রে জানা যায়, দুর্গাপুর উপজেলার ঝালুকা ইউনিয়নের কাঠালবাড়িয়া দক্ষিণপাড়া গ্রামে ভ্যানচালক মাদকাসক্ত স্বামী সুলতান ঠাটারু (৪২) স্ত্রী ইসনাহার (৩৬) অন্য পুরুষের সাথে পরকিয়ায় জড়িয়ে পড়েছে বলে সন্দেহ করতো। এজন্য স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে মাঝেমধ্যেই গন্ডগোল (বাকতিটম্বা) ঝগড়া ও নির্যাতনের ঘটনা ঘটতো বলে জানান এলাকাবাসী।
নিহতের পুত্র বাপ্পি হোসেন ঠাটারু সাংবাদিকদের বলেন, তার মাদকাসক্ত পিতা সুলতান ঠাটারু দীর্ঘদিন থেকে কোন কাজকর্ম না করে নেশাগ্রস্থ হয়ে বাড়িতে এসে তার মায়ের সাথে সবসময় ঝগড়া বিবাদে লিপ্ত হয়। গতকাল মঙ্গলবার রাতে তার বাবা ও মায়ের মধ্যে বাকতিটম্বা ঝগড়ার ঘটনা ঘটে বলে জানান নিহতের পুত্র বাপ্পি হোসেন ঠাটারু। বাপ্পি আরো জানায়, প্রতিদিনের ন্যায় আজ সকালে পিতার ভ্যান নিয়ে ভাড়া মারার উদ্দেশ্যে বাড়ি থেকে বের হন বাপ্পি (১৮) এবং তার ছোটবোন মাহী (৭) সকালে স্কুলে যাওয়ার উদ্দেশ্যে বাড়ি থেকে বের হয়ে চলে যায়। দুপুর পর্যন্ত ভ্যানে ভাড়া মেরে স্কুল থেকে বোন মাহীকে নিয়ে বাড়িতে চলে আসে বাপ্পি।
বাড়িতে এসে দেখে ঘরের দরজা লাগানো অনেক ডাকাডাকির পরও দরজা না খোলায় প্রতিবেশীদের ডেকে এনে দরজা ভেঙ্গে ভিতরে ঢুকলে গলায় দড়ি দেওয়া বাবার ঝুলন্ত মরদেহ এবং মায়ের মৃতদেহ বিছানায় পড়ে থাকতে দেখে। পরে এলাকাবাসীর সহযোগিতায় দূর্গাপুর থানায় খবর দিলে ঘটনাস্থলে আসে দুর্গাপুর থানা পুলিশ ও পুঠিয়া সার্কেল সহকারী পুলিশ সুপার ইমরান জাকারিয়া।
মৃত গৃহবধূ ইসনাহারের চাচাতো ভাই সাংবাদিকদের জানান, দীর্ঘদিন থেকে ভগ্নিপতি সুলতান তার বোন ইসনাহারকে মারপিট নির্যাতন করে আসছিল। ভগ্নিপতি মাদক সেবন করায় এবিষয়ে বাধা দিলে ভগ্নিপতি আমার বোনকে মারপিট করে হত্যার হুমকি ধামকি দিয়ে আসছিল। আমার বোনকে হত্যা করা হয়েছে বলে আমার বিশ্বাস।
দুর্গাপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) নাজমুল হক জানান, সুলতান আলীর ঝুলন্ত মরদেহ পাওয়া গেছে। এবং বিছানায় তার স্ত্রীর মৃতদেহ পাওয়া গেছে।
পুঠিয়ার সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার ইমরান জাকারিয়া বলেন, সিআইডির ক্রাইমসিন টিমকে খবর দেয়া হয়েছে। তারা এসে আলামত নেয়ার পর মরদেহ উদ্ধার করা হবে। তবে ঘটনার কারণ খতিয়ে দেখছে পুলিশ। এ ব্যাপারে আইনত ব্যবস্থা নেয়া হবে বলেও জানান তিনি।
x