পাকিস্তান এখন বাংলাদেশ হতে চায়: কাদের

0 229

দেশের আর্থ-সামাজিক অভাবনীয় অগ্রগতির প্রতি ইঙ্গিত করে আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেছেন, ‘স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তীর আগেই আর্থ-সামাজিক অধিকাংশ সূচকে পাকিস্তানকে পেছনে ফেলে এগিয়ে চলছে বাংলাদেশ। পাকিস্তান পার্লামেন্টে বাংলাদেশের কথা আলোচনা হয়। পাকিস্তান এখন বাংলাদেশ হতে চায়।’

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});

এ প্রসঙ্গে তিনি বলেন, ‘এখানেই একজন মুজিবের আজন্ম সংগ্রামের সফলতা এবং অর্জন। শেখ হাসিনার ম্যাজিক্যাল লিডারশিপ, ক্যারিশমাটিক সিদ্ধান্ত মেকিং-এ বাংলাদেশ আজ বিশ্বসভার বিস্ময়।’

শুক্রবার (১৮ ডিসেম্বর) রাজধানীর সেতু ভবনে বিজয় দিবস উপলক্ষে আলোচনা সভা এবং বঙ্গবন্ধু, মুক্তিযুদ্ধ ও বাংলাদেশ কর্ণারের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে তিনি এসব কথা বলেন।

বিজয়ের মাসে বিএনপির অপচেষ্টার সমালোচনা করে কাদের বলেন, ‘বিএনপি দেশে অরাজক পরিস্থিতি তৈরির নীলনকশা তৈরি করে স্বার্থসিদ্ধির অপচেষ্টায় মেতেছে। তাদের সব অপচেষ্টা অতীতের মতো বুমেরাং হবে।’

ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘জনগণ এখন অনেক সচেতন। জনগণ বিএনপির নেতিবাচক রাজনীতিতে সাড়া দেয় না বলে বিএনপি জনগণের ওপর প্রতিশোধ নিতে চায়। যারা মন ও মননে এদেশকে মেনে নিতে পারেনি, তারাই স্বাধীনতার বিপক্ষ শক্তিবলয়কে পৃষ্ঠপোষকতা দিচ্ছে।’

তিনি বলেন, ‘বিএনপি কথায় কথায় মুক্তিযুদ্ধ ও সার্বভৌমত্বের কথা বলে। অথচ বিদেশিদের কাছে নালিশ দেয়াই এখন তাদের প্রধান কাজ। স্বাধীন দেশের রাজনৈতিক দল হয়ে বিজয়ের মাসে ক্ষমতায় যাওয়ার জন্য প্রকাশ্যে বিদেশি শক্তির নৈতিক সাহায্য চাওয়া বিএনপির দেউলিয়াত্বের লক্ষ্মণ।’

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দৃঢ়চেতা রাজনীতির প্রসঙ্গ টেনে ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘বিনাযুদ্ধে তিনি (প্রধানমন্ত্রী) জয় করেছেন সুনীল সমুদ্রসীমা। লাখো কোটি তরুণের প্রাণে এখন আত্মমর্যাদা বোধের নবস্বপ্ন।’

সেতুমন্ত্রী বলেন, ‘খাদ্য ঘাটতির দেশ এখন অর্জন করেছে খাদ্যে স্বয়ংসম্পূর্ণতা। বন্যা, খরা, মঙ্গা, ঘূর্ণিঝড়ের বাংলাদেশ আজ পারমাণবিক বিশ্বের গর্বিত সদস্য। বিশ্বব্যাংককে চ্যালেঞ্জ করে নিজস্ব অর্থায়নে পদ্মাসেতু নির্মাণের সিদ্ধান্ত নেয়ার মতো সাহস একমাত্র বঙ্গবন্ধুকন্যারই রয়েছে, তা তিনি প্রমাণও করেছেন।’

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক চ্যালেঞ্জ করে বলেন, ‘পদ্মাসেতু নির্মাণে কোনও প্রকার অনিয়ম হয়নি এবং স্বচ্ছতার সামান্যতম ঘাটতিও ছিলো না। ২০২২ সালে পদ্মাসেতুর ওপর দিয়ে যানবাহন চলাচল করবে।’

সড়কমন্ত্রী বলেন, ‘করোনার এসময়ে থেমে নেই জীবন-জীবিকা, দ্বিপাক্ষিক ও বহুপাক্ষিক সম্পর্ক। মহামারির নেতিবাচক প্রভাব কাটিয়ে ঘুরে দাঁড়াতে শুরু করেছে দেশের অর্থনীতি।’

বিজয়ের চেতনা ধারণ করে মুক্তিযুদ্ধের অঙ্গীকার বাস্তবায়নে জাতি আজ বঙ্গবন্ধু কন্যা শেখ হাসিনার নেতৃত্বে ঐক্যবদ্ধ বলেও জানান ওবায়দুল কাদের।

সেতু বিভাগের সচিব মো. বেলায়েত হোসেনের সভাপতিত্বে সভায় বক্তব্য রাখেন সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব মো. আনোয়ার হোসেন।

এর আগে সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী এবং আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বঙ্গবন্ধু কর্ণারের উদ্বোধন করেন এবং পরিদর্শন করেন।

Leave A Reply

Your email address will not be published.

x