পুঠিয়ায় দুর্যোগ সহনীয় বাসগৃহ যেন সুবিধাভোগীদের গলার কাটা

৬৩৬

পুঠিয়া (রাজশাহী) প্রতিনিধি: মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার অবদান টি-আর, কাবিটা কর্মসূচির আওতায় দুর্যোগ সহনীয় বাসগৃহ নির্মাণ, দূর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রনালয় কর্তৃক রাজশাহীর পুঠিয়া নির্মিত ঘর সুবিধাভোগীদের গলার কাটায় পরিণত হয়েছে। ঘর নির্মানের সময় ঠিকাদার ও প্রশাসনের অনিয়মের কারণে ঘরের মেঝে এবং বারান্দায় ইট ব্যবহার না করেই কাজ সম্পন্ন করেছেন।

বর্তমানে তা ফাটল দেখা দিয়েছে। এছাড়া জানালা নিম্ন মানের হওয়ায় ব্যবহারের অনউপযোগী হয়ে পড়েছে। এছাড়া ঘরে তীর ব্যবহার করা হয়নি। ঝড় বা জোরে বাতাস হলে সেই টিন উড়ে যাওয়ার আতংকে রয়েছে পরিবারটি।

জানা গেছে, রাজশাহী জেলার পুঠিয়া উপজেলায় মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার অবদান টি-আর, কাবিটা কর্মসূচির আওতায় দুর্যোগ সহনীয় বাসগৃহ নির্মাণ, দূর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রনালয় কর্তৃক ১২ টি ঘর নির্মাণ করা হয়। এর মধ্যে উপজেলার বারইপাড়া গ্রামের মোছাঃ মরিয়ম বেগম এর নামে একটি ঘর বরাদ্দ হয়।

সুবিধাভোগী মোছাঃ মরিয়ম বেগম এর ছেলে জানান, ঘর নির্মানের সময় সেই ঘরের মেঝেতে ইট ব্যবহার না করেই পলিথিন ব্যবহার করে ঢালাই কাজ সম্পন্ন করেছে। এছাড়া নিম্নমানের জানালা তৈরি করে দেয়। সেই জানালা গুলো এখন আটকানো যায় না, সেগুলো ভিরে না। আর ঘরে উপরে তীর ব্যবহার করা হয়নি। শুধু বাশ দিয়ে আটকানো আছে। বর্ষার সময় ঝড় বা জোরে বাতাস হলে সেই টিন উড়ে যাওয়ার আতংকে রয়েছি তারা। বিষয়টি তদন্ত সাপেক্ষে উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষের তদন্ত সাপেক্ষে ব্যবস্থা গ্রহণের দাবী জানাচ্ছি।

পুঠিয়া উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা ফরিদুল ইসলাম জানান, এই ঘরগুলো আমি আসার আগে হয়েছে। তবে বিষয়টি আমাদের দপ্তরের তাই সেটা আমি দেখবো।

রাজশাহী জেলা ত্রাণ ও পূর্ণবাসন কর্মকর্তা সালাউদ্দিন আল ওয়াদুদ জানান, বিষয়টি তদন্ত সাপেক্ষে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Comments are closed.