প্রচারণার জন্য ‘জোনাস’ পদবি ছেড়েছেন প্রিয়াঙ্কা?

12
তারকা দম্পতি প্রিয়াঙ্কা চোপড়া ও নিক জোনাস। ছবি : সংগৃহীত

বলিউড ছাড়িয়ে প্রিয়াঙ্কা চোপড়া এখন হলিউডের পরিচিত মুখ। কিন্তু গতরাতে পিসি তাঁর ইনস্টাগ্রাম, ফেসবুক ও টুইটারের বায়ো থেকে জোনাস পদবি মুছে দিয়ে বিচ্ছেদের গুঞ্জন উসকে দেন। প্রিয়াঙ্কা চোপড়া জোনাস থেকে তিনি হন শুধুই প্রিয়াঙ্কা চোপড়া। এর জেরেই তুঙ্গে ওঠে ডিভোর্স জল্পনা।

তবে মার্কিন গায়ক নিক জোনাসের সঙ্গে মেয়ে প্রিয়াঙ্কা চোপড়ার বিচ্ছেদের সম্ভাবনার গুঞ্জন স্রেফ উড়িয়ে দিয়েছেন পিসির মা মধু চোপড়া। অন্তর্জালে এখন শুধুই প্রিয়াঙ্কার নাম।

একটি নিউজ পোর্টালকে দেওয়া বিবৃতিতে মধু বলেছেন, গুঞ্জনের ভিত্তি নেই। নেটিজেনদের কাছে তাঁর অনুরোধ, ‘সবই বাজে কথা। গুজব ছড়াবেন না।’ টাইমস অব ইন্ডিয়াকে প্রিয়াঙ্কার এক ঘনিষ্ঠ বন্ধু নাম প্রকাশ না করে একই কথা বলেছেন।

যদিও বিয়ের পর প্রিয়াঙ্কা জোর গলায় বলেছিলেন, ‘আমি ভারতীয় সংস্কৃতিতে বিশ্বাসী, স্বামীর পরিচয় নিজের সঙ্গে যুক্ত করাটা গর্বের।’ তাহলে কী কারণে নিজের নাম থেকে জোনাস পদবি মুছে ফেললেন এই অভিনেত্রী?

তারকা দম্পতি প্রিয়াঙ্কা চোপড়া ও নিক জোনাস। ছবি : সংগৃহীত

টাইমস অব ইন্ডিয়া এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে, হতে পারে, শুধু প্রচারণার জন্য জোনাস পদবি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম থেকে মুছে ফেলেছেন প্রিয়াঙ্কা। কারণটাও বলা হয়েছে সেখানে। আজ জনপ্রিয় ওটিটি প্ল্যাটফর্ম নেটফ্লিক্সে মুক্তি পাচ্ছে কমেডি শো ‘জোনাস ব্রাদার্স : ফ্যামিলি রোস্ট’। ধারণা করা হচ্ছে, এই অনুষ্ঠানটির প্রচারণার জন্য এমন কাজ করেছেন এই অভিনেত্রী।

এ ছাড়া, বিচ্ছেদের গুঞ্জনের মধ্যে স্বামী নিক জোনাসের জিমের ছবির নিচে প্রিয়াঙ্কা মন্তব্য করেছেন, ‘আমি তোমার এই বাহুডোরে মরতে চাই।’ এর মাধ্যমেই অন্তর্জালে যে বিচ্ছেদের গুঞ্জন, তাতে ফুঁ দিয়েছেন প্রিয়াঙ্কা চোপড়া।

কোটি তরুণের হৃদয় ভেঙে ২০১৮ সালের ডিসেম্বরে মার্কিন গায়ক নিক জোনাসের সঙ্গে সাতপাকে বাঁধা পড়েন বলিউড অভিনেত্রী প্রিয়াঙ্কা চোপড়া। ভারতের যোধপুরের উমেদ ভবন প্রাসাদে হয় তাঁদের রাজকীয় বিয়ের আয়োজন। বিবাহপূর্ব অনুষ্ঠানগুলোও ছিল অভিজাত।

এর আগেও একবার এমন গুজব রটেছিল। পরে সে গুঞ্জন ধোপে টেকেনি।

x