ফেসবুক লাইভে মাশরাফি-তামিমের খুনসুটি

144

বিডি সংবাদ টোয়েন্টিফোর ডটকম: ফেসবুক লাইভে এসে নিজেদের নানা মজার স্মৃতিকথা তুলে ধরলেন মাশরাফি বিন মতুর্জা ও তামিম ইকবাল। এসময় ড্রেসিংরুমে মাশরাফি বাবার মতো অভিভাবকের ভূমিকা পালন করতেন বলে মন্তব্য করেন তামিম। এছাড়া মাশরাফির কাছে শেখা অভিজ্ঞতা কাজে লাগিয়ে অধিনায়কত্ব করতে চান বলে জানান তিনি।

লাইভের এ পর্যায়ে খুনসুটিতে মেতে ওঠেন এই দুই ক্রিকেটার। তামিমের কাছ থেকে ব্লাকমেইল করে ব্যাট নিয়ে নিতেন মাশরাফি ঠাট্টাচ্ছলে এমন মন্তব্যও করেন ড্যাশিং ওপেনার তামিম। তবে তামিমের এমন মন্তব্যে উল্টো ছক্কা মারেন মাশরাফি। তার দেয়া ব্যাট ছাড়া নাকি খেলতে পারতেন না ম্যাশ। আর অনেক টাকা দাম দিয়ে ব্যাট না কেনার ফন্দি বলে জানান মাশরাফি।

ঘরোয়া লিগে মাশরাফির বলকেই বেশি শাসন করেছেন বলে ঠাট্টা করেন তামিম। তবে ছেড়ে দেবার পাত্র নন মাশরাফি। তামিমকে বেশি রানের সুযোগ দিয়েছেন বলে পাল্টা মন্তব্য করেন ম্যাশ।

দুজনের কথোপকথনে টিমমেটদের সবার জন্য শুভেচ্ছা জানান মাশরাফি। প্রয়াত মানজারুল ইসলাম রানার স্মৃতিকথাও উঠে আসে দুজনের কথায়। সাকিবকে বিশ্বের অন্যতম সেরা খেলোয়াড় হিসেব অভিহিত করেন দুজনই।

মাশরাফির অধিনায়কত্বে ৫০টি ওয়ানডে জিতেছে টিম টাইগার। তবে কোন তিনটি সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ জয়? তামিমের এমন প্রশ্নেরও উত্তর দেন সাবেক ওয়ানডে অধিনায়ক মাশরাফি।

ফেসবুক লাইভে মাহমুদুল্লাহ রিয়াদের জন্য সহমর্মিতা প্রকাশ করেন দুজন। তার ব্যাটিং অডারে পরিবর্তন আসলে দলে একজন সেরা ব্যাটসম্যান হতে পারতেন, মনে করেন তারা।

কথোপকথনে নিজের ইনজুরি নিয়েও খোলামেলা কথা বলেন মাশরাফি। প্রথম কবে, কোথায়, কীভাবে ইনজুরিতে পড়েন সেসব জানান সাবেক এই অধিনায়ক। ইনজুরির সঙ্গে লড়াই করে টিকে থাকার গল্পও উঠে আসে দুজনের আলোচনায়।

বিশ্বকাপে সাকিব ছাড়া এই দুজন ২৫ শতাংশ ভালো খেললে সেমিফাইনাল উঠতে পারতো বাংলাদেশ। এমন মন্তব্য করেন তামিম। এসময় নিজের লিডারশিপ নিয়ে কাজ করার পরামর্শ দেন মাশরাফি। এছাড়া পারিবারিক নানা দিক নিয়েও কথা বলেন মাশরাফি এবং তামিম।

x