বাঘায় পৃথক ভাবে আ.লীগ ও বিএনপির দুই নেতাকে বহিস্কার

৭৩৯

বাঘা (রাজশাহী) প্রতিনিধি : রাজশাহীর বাঘায় পৃথকভাবে আ.লীগ ও বিএনপির দুই নেতাকে সাময়িক ভাবে বহিস্কার করা হয়েছে। আ.লীগ ও বিএনপির দুই নেতা দলীয় সিদ্ধান্ত উপক্ষো করে আগামী ২৯ ডিসেম্বর বাঘা পৌরসভা নির্বাচনে মেয়র পদে প্রার্থী হয়ে নির্বাচন করছেন। এই অভিযোগে তাদের দল থেকে সাময়িক ভাবে বহিস্কার করা হয়েছে।

জানাযায়, ২১ ডিসেম্বর বিএনপির কেন্দ্রীয় কমিটির সহ-দপ্তরসম্পাদক তাইফুল ইসলাম টিপু স্বাক্ষরিত দলীয় প্যাডে বাঘা পৌর বিএনপির সভাপতি কামাল হোসেন দলীয় শৃঙ্খলা পরিপন্থি কর্মকান্ডে জড়িত থাকায় সুনির্দিষ্ট অভিযোগের প্রেক্ষিতে দলের প্রাথমিক সদস্য পদসহ সকল পদ থেকে বহিস্কার করাহয়েছে।

এবিষয়ে বাঘা উপজেলা বিএনপির আহবায়ক ফখরুল হাসান বাবলু বলেন, বর্তমান সরকারের অধীনে বিএনপি নির্বাচন থেকে দুরে রয়েছে। এ সময় বাঘা পৌর বিএনপির সভাপতি কামাল হোসেন দলীয় সিন্ধান্ত উপেক্ষা করে নির্বাচন করছেন। বিষয়টি কেন্দ্রীয় কমিটিকে অবগত করাহলে কেন্দ্রীয় ভাবে তাকে বহিস্কার করেছেন।

অপরদিকে রাজশাহী জেলা আ.লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি অনিল কুমার সরকার এবংসাধারণ সম্পাদক আবদুল ওয়াদুদ দারা এক যুক্ত বিবৃতিতে জেলা কমিটির সদস্য আক্কাছ আলী দলীয় শৃঙ্খলা ভঙ্গ এবং স্থানীয় সরকার নির্বাচন জনপ্রতিনিধি মনোনয়ন বোর্ডের সিন্ধান্ত অমান্য করে আ.লীগের দলীয় প্রার্থীর বিপক্ষে বিদ্রোহী প্রার্থী হওয়ায় দলীয় গঠন তন্ত্রের ৪৭ (১১) ধারা মোতাবেক সকল পদ থেকে বহিস্কার করার সিন্ধান্ত হয়েছে। এছাড়া তার সাথে কেউ জড়িত থাকলে তাকেও তদন্ত করে ব্যবস্থা নেওয়া হবে। জেলা আ.লীগের দপ্তরসম্পাদক প্রদ্যুৎকুমার সরকার স্বাক্ষরিত দলীয় প্যাডে ২১ ডিসেম্বর এ বিষয়ে অবগত করেন।

এ বিষয়ে উপজেলা আ.লীগের সাধারণসম্পাদক আশরাফুল ইসলাম বাবুল বলেন, মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর দেওয়া নৌকা প্রতিকের বিরুদ্ধে বিদ্রোহী প্রার্থী হওয়ায় ও দলের গঠনতন্ত্র অমান্য করায় আক্কাছ আলীকে আ.লীগের সকল পদ থেকে স্থায়ী ভাবে অব্যাহতি দেয়ার জন্য জেলা কমিটির মাধ্যমে কেন্দ্রীয় কমিটির কাছে সুপারিশ প্রেরণ করা হয়েছে। তবে স্থানীয় ভাবে তাকে বহিস্কার করা হয়েছে।

Comments are closed.