মুজিববর্ষ উপলক্ষ্যে ‘হৃদয়ের অহংকারে তুমি’ গানের অ্যালবামের মোড়ক উন্মোচন

0 36

নিজস্ব প্রতিবেদক: জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মশতবার্ষিকী মুজিববর্ষ উপলক্ষ্যে বাংলাদেশ বেতার রাজশাহীর উদ্যোগে বঙ্গবন্ধুকে নিবেদিত ‘হৃদয়ের অহংকারে তুমি’ গানের অ্যালবামের মোড়ক উন্মোচন করা হয়েছে। রোববার বিকেলে রাজশাহী বেতার ভবনে আয়োজিত অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে অ্যালবামটির মোড়ক উন্মোচন করেন রাজশাহী সিটি কর্পোরেশনের মাননীয় মেয়র এ.এইচ.এম খায়রুজ্জামান লিটন।

 

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে মেয়র খায়রুজ্জামান লিটন বলেন, স্বাধীন দেশমাতৃকার প্রয়োজন কতটা যারা পরাধীন আছে, তারা বুঝতে পারছে। জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান আমাদের একটা স্বাধীন বাংলাদেশ উপহার দিয়েছেন। অথচ এদেশে পাকিস্তানের চিন্তাধারায় বিশ্বাসী কতিপয় ব্যক্তি তাঁকে সপরিবারের হত্যা করেছে। বঙ্গবন্ধু বাংলাদেশের জন্য যা করে গেছেন, সেই ঋণ কখনো পরিশোধ করা সম্ভব হবে না।

মেয়র আরো বলেন, যে বাংলাদেশ গড়ার জন্য বঙ্গবন্ধু আজীবন কাজ করে গেছেন, সেই স্বপ্নের সোনার বাংলা গড়ছেন তাঁরই কন্যা মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা। আমাদের প্রত্যেকে দেশের জন্য নিজ নিজ কাজ করে যেতে হবে। আর সজাগ থাকতে হবে, কেউ যাতে বাংলাদেশ স্বাধীনতা ও সার্বভৌমত্বকে কখনো ছোট করতে না পারে। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার হাত ধরে বাংলাদেশ এমন এক জায়গায় পৌছে যাবে, যেখানে গেলে দেশটিকে আর পেছনে ফিরে তাকাতে হবে না।

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথির বক্তব্য দেন রাজশাহী মহানগর আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি বিশিষ্ট সমাজসেবী শাহীন আকতার রেনী। তিনি তাঁর বক্তব্যে বলেন, ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়েছেন মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। ডিজিটাল বাংলাদেশের ডিজিটাল পদ্ধতি করোনাকালে আমাদের ব্যাপকভাবে কাজে লেগেছে। ডিজিটাল মাধ্যমে আমরা বারংবার প্রধানমন্ত্রীর বিভিন্ন নিদের্শনা পেয়ে সেভাবে কাজ করেছি। করোনা মোকাবেলায় বাংলাদেশ সফল হয়েছেন, বিশ্বে একটা স্থান দখল করেছে। ২০৪১ সালের মধ্যে বাংলাদেশের কাঙ্খিত লক্ষ্য অর্জন হবে আশা করছি।

 

অনুষ্ঠানে আরো বিশেষ অতিথি ছিলেন শিক্ষাবিদ, লেখক ও গবেষক ড. তসিকুল ইসলাম রাজা। স্বাগত বক্তব্য দেন রাজশাহী বেতারের উপ-আঞ্চলিক পরিচালক শিউলি রাণী বসু। আরো বক্তব্য দেন আঞ্চলিক প্রকৌশলী ফারজানা আফরোজ ও সঙ্গীত প্রযোজক আব্দুল খালেক ছানা। অনুষ্ঠানের সঞ্চালনা করেন বেতারের উপস্থাপক ও সংবাদ পাঠক আব্দুর রোকন মাসুম। অনুষ্ঠানে বীর মুক্তিযোদ্ধাবৃন্দ, শিক্ষকবৃন্দ, বেতারের শিল্পী, উপস্থাপক, কলাকুশলীসহ সংশ্লিষ্টরা উপস্থিত ছিলেন।

Leave A Reply

Your email address will not be published.