মুসলিমদের গণপিটুনি: চিঠি লেখা ৫০ বুদ্ধিজীবীর বিরুদ্ধে ব্যবস্থা!

0 98

ভারত-পাকিস্তান ডেস্ক: ধর্মীয় উগ্রবাদী বিজেপি ক্ষমতায় আসার পর থেকেই দেশটিতে সংখ্যালঘু মুসলিমদের গণপিটুনি দিয়ে হত্যা ও জয় শ্রীরাম স্লোগান দিয়ে নৈরাজ্যের অভিযোগ রয়েছে। এর বিরুদ্ধে সোচ্চার হয়েছেন দেশটির বুদ্ধিজীবীরা। এদের মধ্যে ৫০ জন বুদ্ধিজীবী এই নৈরাজের লাগাম টেনে ধরতে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির কাছে চিঠি লিখেছিলেন।

কিন্তু নরেন্দ্র মোদির বরাবর চিঠি লেখা এই বুদ্ধিজীবীরাই এখন রোসানলে। তাদের বিরুদ্ধে এফআইআর দায়ের করা হয়েছে। ধর্মীয় ভাবাবেগে আঘাত, সামাজিক শান্তি বিঘ্ন করার চেষ্টা এবং প্ররোচনার দায়ে এদের বিরুদ্ধে এফআইআর দায়ের করা হয়েছে বলে জানিয়েছে পুলিশ।

দেশটির শীর্ষস্থানীয় সংবাদ মাধ্যম টাইমস অব ইন্ডিয়া জানায়, বৃহস্পতি বিহারের মুজফফরপুরের সদর পুলিশ স্টেশনে এফআইআর দায়ের করা হলো রামচন্দ্র গুহ, মণিরত্নম, অপর্ণা সেনসহ প্রায় ৫০ জন বুদ্ধিজীবীর বিরুদ্ধে। তারা সবাই গণপিটুনি এবং জয় শ্রীরাম স্লোগানকে যুদ্ধের হাতিয়ারে পরিণত করা হয়েছে, এই অভিযোগে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে একটি খোলা চিঠি লিখেছিলেন।

খোলা চিঠি লিখে বুদ্ধিজীবীরা দেশের ভাবমূর্তি কলুষিত করেছেন এবং প্রধানমন্ত্রীর কৃতিত্বকে খাটো করেছেন বলে অভিযোগ করে তাদের বিরুদ্ধে আদালতে মামলা করেছিলেন বিহারের আইনজীবী সুধীর কুমার ওঝা।

সেই আবেদনের ভিত্তিতে দুই মাস আগে মণিরত্নম, অপর্ণা সেনদের বিরুদ্ধে এফআইআর দায়ের করার নির্দেশ জারি করেন চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট সূর্যকান্ত তিওয়ারি। সেই নির্দেশের ভিত্তিতে বৃহস্পতিবার এই এফআইআর দায়ের করা হলো।

নরেন্দ্র মোদিকে লেখা খোলা চিঠিতে প্রায় ৫০ জন বুদ্ধিজীবীর স্বাক্ষর ছিল। এখানে সই করেন মণিরত্নম, অপর্ণা সেন, রামচন্দ্র গুহ, সৌমিত্র চট্টোপাধ্যায়, অনুরাগ কাশ্যপ, শ্যাম বেনেগাল, শুভ মুদগলের মতো শিল্পীরা।

Leave A Reply

Your email address will not be published.

x