সমুদ্রতীরে পড়ে আছে প্রায় দেড়’শ মৃত তিমি!

0 197

আন্তর্জাতিক ডেস্ক: নিউজিল্যান্ডের স্টুয়ার্ট দ্বীপে সমুদ্রতীরে আটকা পড়ে মারা গেছে অন্তত ১৪৫টি পাইলট প্রজাতির তিমি। আগন্তুকরা শনিবার (২৪ নভেম্বর) মেসন উপসাগরীয় অঞ্চলের ওই দ্বীপে মৃত তিমিগুলো দেখতে পান।

কর্তৃপক্ষ জানায়, অর্ধেকের বেশি তিমি তখনই মারা গিয়েছিল। তবে বাকিদেরও রক্ষা করা সম্ভব হয়নি।

এছাড়া, সপ্তাহজুড়ে আরও অন্তত ১২টি পিগমি ও স্পার্ম তিমি নিউজিল্যান্ডের বিভিন্ন সমুদ্রতীরে আটকা পড়ার ঘটনা ঘটেছে। এরমধ্যে ৪টি মারা যায়। বাকিগুলোকে পানিতে ভাসিয়ে দেওয়া যাবে বলে কর্তৃপক্ষ আশা করছে।

নিউজিল্যান্ডের রিজিওন্যাল ডিপার্টমেন্ট অব কনজারভেটিভ-এর কর্মকর্তা রেন লেপেন্স জানান, স্টুয়ার্ট দ্বীপে আটকা পড়া ওই পাইলট তিমিগুলোকে পুনরায় সমুদ্রে ভাসিয়ে দেওয়ার সম্ভাবনা খুব কম ছিলো। সেইসঙ্গে, লোকবলের অভাব ও তিমিগুলোর অবস্থাও খারাপ হচ্ছিলো। তাই তাদের মৃত্যুর মতো এমন হৃদয়বিদারক ঘটেছিলো।

ডলফিন বা তিমি কেন সমুদ্র তীরে এভাবে আটকা পড়ে তা এখনো গবেষকরা আবিষ্কার করতে পারেননি। তবে ধারণা করা হয়, অসুস্থতা, চলার পথে দিক ভুল করা, জোয়ারে ভেসে অথবা সমুদ্রে অধিকতর বড় কোন প্রাণির হামলায় এ ধরনের ঘটনা ঘটতে পারে।

এর আগে গেল বছর নিউজিল্যান্ডের গোল্ডেন বে সমুদ্র সৈকতে এক সঙ্গে প্রায় ৪০০ তিমি আটকে যায়। এর মধ্যে ৩ শতাধিক তিমিকে ইতিমধ্যেই মৃত ঘোষণা করা হয়।

বিডি সংবাদ টোয়েন্টিফোর ডটকম/

Leave A Reply

Your email address will not be published.

x