২০২৬ বিশ্বকাপ : এশিয়া থেকে যে কয়টি দেশ যেভাবে খেলবে

68

২০২৬ সাল থেকে বিশ্বকাপ অনুষ্ঠিত হবে ৪৮টি দল নিয়ে। ফিফা সভাপতির দায়িত্ব নেওয়ার পর থেকেই ৪৮টি দল নিয়ে বিশ্বকাপ আয়োজনের কথা বলেছিলেন জিয়ান্নি ইনফান্তিনো। শেষ পর্যন্ত এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়, তাও বেশ কিছু দিন হয়েছে।

১৯৯৮ সাল থেকে কাতার বিশ্বকাপ পর্যন্ত পাঁচটি বিশ্বকাপ আয়োজন হচ্ছে ৩২টি দল নিয়ে। তবে ৪৮ দেশের বিশ্বকাপে বেশি সুবিধা পাচ্ছে এশিয়া ও আফ্রিকার দেশগুলো।

এএফসির ওয়েবসাইটের খবরে জানা গেছে, এত দিন এশিয়া থেকে চারটি দেশ সরাসরি বিশ্বকাপে খেলার সুযোগ পেতো। ২০২৬ থেকে আটটি দেশ খেলার সুযোগ পাবে। প্লে-অফে জিততে পারলে আরও একটি দেশ বিশ্বকাপে খেলার সুযোগ থাকছে।

এএফসি এরই মধ্যেই বাছাই পর্বের নিয়ম তৈরি করেছে। এশিয়ান অঞ্চলের অধীনে ৪৭টি দেশ রয়েছে। প্রাক বাছাই পর্ব থেকে বাছাই পর্বে ওঠা ৩৬টি দেশকে নয়টি গ্রুপে ভাগ করা হবে। প্রতিটি গ্রুপে থাকবে চারটি করে দেশ।

গ্রুপ পর্ব থেকে প্রথমে দুটি করে দেশ মোট ১৮টি দেশ পরের পর্বে উঠবে। পরে তিন গ্রুপে ভাগ হয়ে ছয়টি করে দেশ একে অপরের বিরুদ্ধে রাউন্ড রবিন লিগ পদ্ধতিতে খেলবে। প্রতিটি গ্রুপের শীর্ষে থাকা দুটি দল সরাসরি বিশ্বকাপে খেলবে। মোট ছটি দেশের বিশ্বকাপে উঠবে।

আগের রাউন্ডের তিনটি গ্রুপের তৃতীয় এবং চতুর্থ হওয়া দলগুলো প্লে-অফে খেলবে। সেখানে ছটি দেশকে দুটি গ্রুপ হবে। গ্রুপের জয়ী দুটি দেশ সরাসরি বিশ্বকাপে যাবে।

x