আমরা সব সময় স্বচ্ছ প্রক্রিয়ার মাধ্যমে নির্বাচন চেয়েছি- হানিফ

১৮৫
কুষ্টিয়ায় নিজ বাসভবনে আজ শুক্রবার সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলেন আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব-উল আলম হানিফ। ছবি : সংগৃহীত

আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব-উল আলম হানিফ বলেছেন, ‘আমরা সব সময় স্বচ্ছ প্রক্রিয়ার মাধ্যমে নির্বাচন চেয়েছি। সেই নির্বাচনের যে ফলাফল, সেটা মেনে নিই। সরকার তার নির্ধারিত সময় শেষ করে, নির্বাচনের মাধ্যমে আবারও শেখ হাসিনার নেতৃত্বে ক্ষমতায় আসবে বলে আমি আশাবাদী।’

আজ শুক্রবার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে কুষ্টিয়া শহরের পিটিআই রোডের নিজ বাসভবনে সমসাময়িক রাজনৈতিক পেক্ষাপট নিয়ে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে হানিফ এসব কথা বলেন।

ঢাকা বার কাউন্সিলের নির্বাচন নিয়ে হানিফ বলেন, ‘২০০৯ সাল থেকে আওয়ামী লীগ টানা ১৩ বছর রাষ্ট্রক্ষমতায় রয়েছে। এই ১৩ বছরে অনেকবার সুপ্রিম কোর্টের নির্বাচন হয়েছে। এতে বিএনপির অনেক প্রার্থী জয়লাভ করেছেন। আওয়ামী লীগ রাষ্ট্রীয় ক্ষমতা ব্যবহার করে বিএনপির প্রার্থীকে পরাজিত করার ইচ্ছে পোষণ করে না।’

মাহবুব-উল আলম হানিফ বলেন, ‘ঢাকা বার কাউন্সিলের নির্বাচনের সঙ্গে বেগম খালেদা জিয়ার মামলার সম্পর্ক জড়ানো আসলে বিএনপির রাজনৈতিক কূটকৌশলের অংশ ছাড়া কিছুই নয়। সুপ্রিম কোর্টের নির্বাচন নিয়ে যে বিষয়টা হয়েছে, সেটা সুপ্রিম কোর্টের সঙ্গে সংশ্লিষ্ট আইনজীবীরা ভালো ব্যাখ্যা দিতে পারবেন।’

এ বিষয়ে হানিফ আরও বলেন, ‘আমরা যতটুকু জেনেছি, নির্বাচনের পরে ফলাফল গণনার সময় কিছু বিতর্ক হয়েছিল এবং অভিযোগের পরিপ্রেক্ষিতে ভোট পুনরায় গণনা করে ফলাফল প্রকাশিত হয়েছে। এর বাইরে কোনো তথ্য জানা নেই।’

বিএনপির আন্দোলন প্রসঙ্গে হানিফ বলেন, ‘২০১২ সালের পর থেকে বেগম খালেদা জিয়াসহ বিএনপির শীর্ষ নেতারা একাধিক বার বলেছেন, ঈদের পরে তীব্র আন্দোলনের মাধ্যমে সরকারের পতন ঘটানো হবে। আল্লাহর অশেষ রহমতে বিএনপির তীব্র আন্দোলনের মুখেও সরকার টানা ১৩ বছর রাষ্ট্রীয় ক্ষমতায় আছে।’

এসময় কুষ্টিয়া জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক শেখ হাসান মেহেদি, তথ্য ও গবেষণা সম্পাদক রাশেদুল ইসলাম বিপ্লবসহ দলীয় নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।

Comments are closed.