অস্ত্রের অভাবে যুদ্ধে যাওয়ার শক্তি সম্পূর্ণ হারিয়েছে আমেরিকা

0 627

american-army-1আন্তর্জাতিক ডেস্ক : আমেরিকা এখন আর বিশ্বের এক নম্বর শক্তিধর দেশ নয়। এমনটাই মন্তব্য করলেন ইরানের ইসলামী বিপ্লবী গার্ড বাহিনী বা আইআরজিসি’র সেকেন্ড ইন-কমান্ড ব্রিগেডিয়ার জেনারেল হোসেন সালামি। তিনি আরও বলেন, যে কোনও দেশের বিরুদ্ধে সরাসরি যুদ্ধে যাওয়ার সক্ষমতা হারিয়েছে আমেরিকা। তেহরানে মার্কিন দূতাবাস দখলের ৩৭তম বার্ষিকী উপলক্ষে আয়োজিত এক সমাবেশে বক্তৃতা দেওয়ার সময় জেনারেল সালামি এমনটাই জানান।  দিবসটিকে বিশ্বের বলদর্পী শক্তিগুলোর বিরুদ্ধে লড়াইয়ের দিবস বা ‘শিক্ষার্থী দিবস’ হিসেবেও পালন করা হয়।

সালামি বলেন, ‘আমেরিকা এখন অনেক বড় সংকটের মধ্য দিয়ে যাচ্ছে। এবং নিজেকে এখন আর বিশ্বের এক নম্বর শক্তি হিসেবে বিবেচনা করতে পারে না। মার্কিন রাজনৈতিক ইচ্ছা দিয়ে এখন আর পশ্চিম এশিয়া বা মধ্যপ্রাচ্য শাসন করার ক্ষমতা নেই।’ তিনি আরও বলেন, আমেরিকা এখন আর কোনও দেশের বিরুদ্ধে সরাসরি আগ্রাসন চালাতে পারবে না। এর অর্থ হচ্ছে  মার্কিন যুদ্ধাস্ত্রগুলো এখন জ্বালানিহীন হয়ে পড়েছে।

তেহরানের পরমাণু ইস্যুতে ছয় জাতিগোষ্ঠীর সঙ্গে সই হওয়া সমঝোতা চুক্তি বাস্তবায়নের ব্যাপারে আমেরিকা তার প্রতিশ্রুতি রক্ষা না করা প্রসঙ্গে সালামি হুঁশিয়ারি দিয়ে বলেন, ইরানি জাতি এখন পর্যন্ত ওয়াশিংটনের ব্যাপারে অনেক ধৈর্য ধরেছে। তবে ইরানি জাতির ধৈর্যের একটা সীমা আছে বলেও আমেরিকাকে কার্যত হুঁশিয়ারি দেন জেনারেল সালামি। খবর কলকাতা। খবর কলকাতা।

Leave A Reply

Your email address will not be published.