আগামীকাল ঢাকায় দুই বাংলার তারার মেলা

0 6

বিনোদন ডেস্ক: আগামীকাল সোমবার (২১ অক্টোবর) রাজধানীর ইন্টারন্যাশনাল কনভেনশন সিটি বসুন্ধরার নবরাত্রি হল ৪-এ বসছে ভারত-বাংলাদেশ ফিল্ম অ্যাওয়ার্ডের প্রথম আসর। ফিল্ম ফেডারেশন অব ইন্ডিয়ার আয়োজনে অনুষ্ঠিত হবে এই অ্যাওয়ার্ড অনুষ্ঠান।

শুক্রবার (১৮ অক্টোবর) কলকাতার একটি পাঁচতারকা হোটেলে ওই পুরস্কারের লোগো উন্মোচন এবং আয়োজনের চূড়ান্ত সূচি প্রকাশ করা হয় করা হয়।

ভারতের পক্ষ থেকে রঞ্জিত মল্লিক ও বাংলাদেশের পক্ষ থেকে আনোয়ারা বেগমকে লাইফটাইম অ্যাচিভমেন্ট অ্যাওয়ার্ড দেওয়া হবে। পপুলার, টেকনিক্যাল ও রিজিওনাল-এই তিনটি ক্যাটাগরিতে মোট ২৪টি বিভাগে অ্যাওয়ার্ড দেওয়া হবে। এসব বিভাগের মধ্যে রয়েছে- সেরা ছবি, সেরা নির্মাতা, অভিনেতা, অভিনেত্রী, পার্শ্ব অভিনেতা-অভিনেত্রী, সেরা গান, সেরা কণ্ঠশিল্পী নারী-পুরুষ, পপুলার ফিল্ম ইন দ্য ইয়ার, পপুলার অ্যক্টর অ্যান্ড অ্যক্ট্রেস অব দ্য ইয়ার, লাইভ টাইম অ্যচিভমেন্ট, সেরা কাহিনী, চিত্রগ্রাহক, সেরা সম্পাদক ইত্যাদি।

প্রথম বছর অ্যাওয়ার্ডে বাংলাদেশ ও ভারতের পক্ষ থেকে জুরি কমিটিতে থাকছেন পাঁচজন করে মোট দশজন বিশেষজ্ঞ। ভারত থেকে জুুরি বোর্ডের মধ্যে রয়েছেন পরিচালক গৌতম ঘোষ, অভিনেতা-নির্মাতা ব্রাত্য বসু, সাংবাদিক ও সমালোচক গৌতম ভট্টাচার্য, প্রযোজক অঞ্জন বোস এবং অভিনেত্রী তনুশ্রী চক্রবর্তী।

অন্যদিকে বাংলাদেশ থেকে জুরি হিসেবে আছেন অভিনেতা আলমগীর, অভিনেত্রী কবরী, ঔপন্যাসিক ও দৈনিক কালের কণ্ঠ পত্রিকার সম্পাদক ইমদাদুল হক মিলন, প্রযোজক সমিতির সভাপতি খোরশেদ আলম খসরু এবং পরিচালক হাসিবুর রেজা কল্লোল।

ফিল্ম ফেডারেশন অব ইন্ডিয়া ও বসুন্ধরা গ্রুপের উদ্যোগে এ পুরস্কার অনুষ্ঠানটি নিবেদন করছে প্রযোজনা প্রতিষ্ঠানটি টিএম ফিল্মস। ২০১৮ সালের জুন মাস থেকে চলতি বছরের (২০১৯) জুন মাস পর্যন্ত ভারত ও বাংলাদেশে মুক্তি পাওয়া বাংলা চলচ্চিত্রগুলো থেকে এসব পুরস্কার বাছাই করা হচ্ছে। আর এই মহাযজ্ঞ অনুষ্ঠানটি উপস্থাপনা করবেন ভারতের মীরাক্কেল-খ্যাত মীর আফসার আলী আর বাংলাদেশের অভিনেতা-নির্মাতা-উপস্থাপক শাহরিয়ার নাজিম জয়।

ভারত-বাংলাদেশ ফিল্ম অ্যাওয়ার্ড অনুষ্ঠানটির সার্বিক সহযোগিতায় আছে ভারতের জি-বাংলা ও বাংলাদেশের ইস্ট ওয়েস্ট মিডিয়া গ্রুপ। মিডিয়া পার্টনার হিসেবে আছে এটিএন বাংলা ও গানবাংলা টেলিভিশন।

Leave A Reply

Your email address will not be published.