আবরার হত্যা: অমিত-মিজানের পর এবার তোহা গ্রেফতার

0 ২৩৬
নিহত বুয়েট শিক্ষার্থী আবরার ফাহাদ (ছবি সংগৃহিত)

বিডি সংবাদ টোয়েন্টিফোর ডটকম: স্বাধীন মতপ্রকাশের কারণে বাংলাদেশ প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (বুয়েট) মেধাবী শিক্ষার্থী আবরার ফাহাদকে পিটিয়ে হত্যার ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে হোসেন মোহাম্মদ তোহাকে গ্রেফতার করেছে ডিবি পুলিশ। তোহা আবরার হত্যা মামলার এজাহারভুক্ত ১১ নম্বর আসামি। তিনি বুয়েটের এমই বিভাগের ১৭তম ব্যাচের ছাত্র।

বৃহস্পতিবার (১০ অক্টোবর) বিকেল ৩টার দিকে গাজীপুরের মাওনা থেকে তাকে গ্রেফতার করে পুলিশের গোয়েন্দা বিভাগ (ডিবি)।

তোহাকে গ্রেফতারের বিষয়টি ব্রেকিংনিউজকে নিশ্চিত করেছেন ঢাকা মেটোপলিটন পুলিশের মিডিয়া ও পাবলিক রিলেশন্স বিভাগের উপ-কমিশনার (ডিসি) মাসুদুর রহমান।

তিনি বলেন, আবরার ফাহাদ হত্যা মামলার এজাহারভুক্ত আসামি হোসেন মোহাম্মদ তোহাকে গ্রেফতার করা হয়েছে। তোহাকে গ্রেফতারের মধ্য দিয়ে গ্রেফতারের সংখ্যা দাঁড়ালো ১৬ জনে।

এদিকে আবরার হত্যায় জড়িত থাকার অভিযোগে একইদিন বেলা ১১টার দিকে বুয়েট শাখা ছাত্রলীগের আইন বিষয়ক উপ-সম্পাদক ও বুয়েট সিভিল ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের ১৬তম ব্যাচের ছাত্র অমিত সাহাকে রাজধানীর সবুজবাগ কালিবাড়ী এলাকা থেকে আটক করে পুলিশ। দুপুর ১২টার দিকে আবরারের রুমমেট মো. মিজানুর রহমান ওরফে মিজানকে বুয়েটের শের-ই-বাংলা হলের-১০১১ নম্বর রুম থেকে তুলে নিয়ে গেছে গোয়েন্দা পুলিশ।

এর আগে দুপুরে ডিএমপি মিডিয়া সেন্টারে আবরার হত্যা মামলার বিষয়ে প্রেস ব্রিফিংয়ে ডিএমপির কাউন্টার টেরোরিজম অ্যান্ড ট্রান্সন্যাশনাল ক্রাইম ইউনিটের (সিটিটিসি) প্রধান অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার মনিরুল ইসলাম বলেন, ‘আবরার ফাহাদ হত্যা মামলার এজাহারে নাম না থাকার পরও প্রাথমিক তদন্তে সংশ্লিষ্টতা থাকায় ৩ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে।’

এজাহারে নাম না থাকা গ্রেফতারকৃত তিনজন হলেন- অমিত সাহা, মিজানুর রহমান ওরফে মিজান ও শামসুল আরেফিন আরাফাত।

Leave A Reply

Your email address will not be published.