গোপালগঞ্জে গৃহবধূকে হত্যার অভিযোগ

3,581

গোপালগঞ্জ প্রতিনিধি : যৌতুকের বলি হয়ে পরিবার আর সন্তানদের নিয়ে ঈদ করা হলো না গুহবধূ ঈদ করা ময়না খানমের (৪০)। গোপালগঞ্জের টুঙ্গিপাড়ায় বিদ্যুতের তারে জড়িয়ে ময়না খানমকে হত্যার অভিযোগ উঠেছে স্বামী ও তার পরিবারের বিরুদ্ধে।

সোমবার দুপুরে টুঙ্গিপাড়া উপজেলার গহরডাঙ্গা চৌরঙ্গী এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

নিহত ময়না খানম টুঙ্গিপাড়া উপজেলার গহরডাঙ্গা চৌরঙ্গী এলাকার বশার শেখের স্ত্রী। এ ঘটনার পর থেকে নিহতরে স্বামী বাশার শেখ পলাতক রয়েছে।

নিহতরে ভাই মামুন শেখ মুঠোফোনে অভিযোগ করে জানান, প্রায় ২০ বছর আগে টুঙ্গিপাড়া উপজেলার গহরডাঙ্গা চৌরঙ্গী এলাকার বশার শেখের সাথে গোপালগঞ্জ শহরের মনিকদাহ গ্রামের মুক্তিযোদ্ধা চাঁন মিয়োর মেয়ে ময়নার বিয়ে হয়। তাদের সংসারের তিন মেয়ে রয়েছে।

বিয়ের পর থেকে স্বামী ও শ্বশুর বাড়ীর লোকজন বিভিন্ন ভাবে যৌতুকের নামে টাকা টেয়ে আসছিল। বোনের কথা ভেবে তাদেরকে বিভিন্ন সময় টাকা দেওয়া হয়। গত ২৫ রমজানের সময় বাপের বাড়ী আসলে ঈদের কেনা কাটার জন্য ২০ হাজার টাকা দেওয়া হয। কিন্তু তারপরে টাকা চাইলে ময়না আনতে আস্বীকার করে। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে ময়নাকে পা বেধে ব্যাটারী চালিত রিক্সায় চার্জ দেওয়ার তারে জড়িয়ে হত্যা করে।

টুঙ্গিপাড়া থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) এ.কে.এম এনামুল কবীর জানান, ঘটনার শোনার পর সেখানে পুলিশ পাঠিয়েছে। মৃতদেহ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য গোপালগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। ঘটনার পর থেকে নিহতের স্বামী পলাতক রয়েছে। লাশের ময়না তদন্ত শেষে প্রকৃত কারন জানা যাবে। এ ব্যাপারে মামলা দায়েরর প্রস্তুতি চলছে।

x