জেলা প্রশাসকের নির্দেশে এনজিও (সাকো) বন্ধ করলো ইউএনও 

62
নিয়ামতপুর(নওগাঁ) প্রতিনিধি: নওগাঁর নিয়ামতপুরে সোসাল এ্যাডভান্সমেন্ট কমিউনিটি অর্গানাইজেশন (সাকো) এর তিনটি শাখার কার্যক্রম জেলা প্রশাসকের নির্দশনায় অভিযান চালিয়ে বন্ধ করে দিয়েছেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) আব্দুল্লাহ আল মামুন। রবিবার(৩ জুলাই) সকাল ১১ টার দিকে উপজেলা সদরের সাকো এনজিওতে অভিযান চালান তিনি।
ইউএনও সাংবাদিককে জানান, সোসাল এ্যাডভান্সমেন্ট কমিউনিটি অর্গানাইজেশন (সাকো) নামে একটি এনজিও বরগুনা জেলায় কার্যক্রম পরিচালনা করে আসছে। একই নাম দিয়ে তাদের অনুমোদনের কাগজ দিয়ে প্রধান অফিস নওগাঁর পোরশার সরাইগাছি মোড়ে দেখিয়ে জহুরুল ইসলাম জহির নামের এক ব্যক্তি নওগাঁ ও চাঁপাইনবাবগঞ্জের বিভিন্ন উপজেলায় ২৭ টি ব্রাঞ্চ পরিচালনার মাধ্যমে ক্ষুদ্রঋণ পরিচালনা করে আসছে।
সাকো বরগুনা অফিসের দৃষ্টি গোচর হলে বিষয়টি নিয়ে মাইক্রোক্রেডিট রেগুলেটরি অথরিটি ও নওগাঁ জেলা প্রশাসক বরাবর অভিযোগ প্রদান করেন। বিষয়টির স্বপক্ষে জহুরুল ইসলাম সঠিক কাগজপত্র দেখাতে ব্যর্থ হওয়ায় জেলা প্রশাসক স্বাক্ষরিত চিঠিতে নওগাঁ জেলায় এনজিও সাকোর কার্যক্রম বন্ধের নির্দেশ দেন। তারই আলোকে নিয়ামতপুর উপজেলার তিনটি শাখা বন্ধ করে দেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) আব্দুল্লাহ আল মামুন।
x