তুরস্কে আগাম নির্বাচনের ঘোষণা এরদোগানের

297

আন্তর্জাতিক অনলাইন ডেস্ক : নির্ধারিত সময়ের ১৭ মাস আগে তুরস্কে আগাম নির্বাচনের ঘোষণা দিয়েছেন দেশটির প্রেসিডেন্ট রিসেপ তাইয়েপ এরদোগান। বুধবার তিনি আগাম নির্বাচনের ঘোষণা দেন। সূত্র: আনাদুলু এজেন্সি।

আগামী বছরের নভেম্বর মাসে তুরস্কের পরবর্তী প্রেসিডেন্ট ও সংসদ নির্বাচন হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু নির্বাচন এগিয়ে চলতি বছরের জুন মাসে করার ঘোষণা দিয়েছেন তুরস্কের প্রেসিডেন্ট।

এরদোগান জানান, দেশটির বিরোধী দল ন্যাশনালিস্ট মুভমেন্ট পার্টির (এমএইচপি) প্রধান ডেভলেত বাচেলির প্রস্তাব অনুসারে আগাম নির্বাচনের সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে।  আগামী ২৪ জুন নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। আর এ নির্বাচনের মধ্য দিয়ে দেশটির রাজনৈতিক কিছু পরিবর্তন আসবে বলেও ঘোষণা করেন তিনি।

তুর্কি প্রেসিডেন্ট বলেন, পুরনো পদ্ধতির শাসন ব্যবস্থা ছিল দুর্বল। তবে আগামী নির্বাচনের পর সরকার ও প্রেসিডেন্ট একসঙ্গে কাজ করবে।

এরদোগান বলেন, তুরস্কের বর্তমান সংকট নিরসন বিশেষ করে সিরিয়ায় সেনা উপস্থিতির মতো বিষয় নিয়ে সংকট কাটিয়ে উঠতে প্রেসিডেন্টের হাতে নির্বাহী ক্ষমতা নেয়া জরুরি। এসব বিষয়ে শক্ত হাতে সিদ্ধান্ত নেয়া প্রয়োজন বলেও তিনি উল্লেখ করেন।

তুর্কি প্রেসিডেন্ট বলেন, প্রেসিডেন্ট ও সরকারকে পুরনো অনেক ব্যবস্থার সঙ্গে কাজ করতে হচ্ছে যা প্রতিদিন প্রতিটি পদক্ষেপে বিঘ্ন সৃষ্টি করে।

এরদোগানের ঘোষণার পর বিলটি দেশটির পার্লামেন্টে পাঠানো হয়েছে। বিলে সই করেছেন দেশটির প্রধানমন্ত্রী বিনালি ইলদিরিন। এছাড়া স্বাক্ষর করেছেন বিরোধীদলীয় নেতা ডেভলেত বাচেলিও। আগামী ২০ ও ২১ এপ্রিল সংসদে আলোচনার পর এটি গৃহীত হতে পারে।

এরদোগান এমন এক সময় নির্বাচনের ঘোষণা দিয়েছেন যখন এরদোগান সরকারের সফল আফরিন অভিযান শেষ হয়েছে। ওই অভিযানের পর পিকেকেসহ সন্ত্রাসী গোষ্ঠীর সম্ভাব্য হামলার ঝুঁকি থেকে অনেকটা নিরাপদ হয়েছে। এছাড়াও তুরস্কের এককভাবে পরিচালিত এ অভিযান আন্তর্জাতিক বিশ্বে দেশটির গুরুত্ব আরও বাড়িয়ে দিয়েছে। এটি এরদোগানের জন্য আগামী নির্বাচনে বিশেষ সহায়ক হবে বলে বিশ্লেষকরা মনে করছেন।

তুরস্কের নির্বাচনী সংস্থা বলেছে, দেশে আগাম নির্বাচন অনুষ্ঠানে তাদের কোনো সমস্যা নেই।

x