নাটোরের বড়াইগ্রামে পৃথক দুই দুর্ঘটনায় দুই নারীর মৃত্যু

0 ৯৯

নাটোর প্রতিনিধি: নাটোরের বড়াইগ্রামে পৃথক দুই দুর্ঘটনায় দুই নারীর মৃত্যু হয়েছে। সোমবার দুপুরে উপজেলার বড়াইগ্রাম ইউনিয়নের জালশুকা গ্রামে নিজ বাড়ীতে কাজ করার সময় মাটির দেয়াল ভেঙ্গে চাপা পড়ে ঘটনাস্থলে মারা যায় গৃহবধূ আম্বিয়া খাতুন (৫০)।

অপরদিকে উপজেলার জোয়াড়ি ভবানীপুর স্লুইস গেট এলাকায় বড়াল নদীতে গোসল করতে নেমে পানিতে ডুবে মারা যায় গৃহবধু উর্মি খাতুন (১৯)। নিহত আম্বিয়া খাতুন জালশুকা গ্রামের আব্দুর রহমান প্রামাণিকের স্ত্রী। অপর নিহত গৃহবধু উর্মি খাতুন জোয়ারি ভবানীপুর গ্রামের রাজমিস্ত্রি মিনাউল ইসলামের স্ত্রী।

বড়াইগ্রাম থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আবু সিদ্দিক ও স্থানীয়রা জানান, দুপুরে গৃহবধু আম্বিয়া খাতুন তার নিজ বাড়ীর মাটির দেয়াল কাদা দিয়ে লেপনের কাজ করছিল। এ সময় সেই মাটির দেয়াল ভেঙ্গে তার শরীর উপর পড়ে যায়। এতে সে দেয়ালের নিচে চাপা পড়ে ঘটনাস্থলেই মারা যায়।

অপরদিকে উর্মি খাতুন দুপুরে ভবানীপুর স্লুইস গেট এলাকায় বড়াল নদীতে গোসল করতে নেমে নিখোঁজ হয়। ঘটনাটি অন্যরা দেখতে পেয়ে আশেপাশের লোকজনকে জানালে তারা পানিতে নেমে খোঁজাখুজি শুরু করে। এরপর স্থানীয়রা পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিস সদস্যদের জানান। খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিস সদস্যরা ঘটনাস্থলে গিয়ে তিন ঘন্টা চেষ্টার পর তার মরদেহটি উদ্ধার করে।

Leave A Reply

Your email address will not be published.