নাটোরে ধর্ষণ মামলায় দুইজনকে যাবজ্জীবন ও একজনকে ১০ বছরের আটকাদেশ দিয়েছে আদালত

0 ৪১

নাটোর প্রতিনিধি: নাটোরের নলডাঙ্গায় এক কিশোরীকে ধর্ষণ মামলায় দুইজনকে যাবজ্জীবন কারাদন্ড ও একজনকে ১০ বছরের আটকাদেশ দিয়েছে আদালত। এ সময় আদালতের বিচারক যাবজ্জীবন দন্ডপ্রাপ্তদের ৭০ হাজার টাকা জরিমানারও আদেশ দেন।

বৃহস্পতিবার নাটোরের নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালের বিচারক মুহাম্মদ আব্দুর রহিম এই আদেশ দেন। যাবজ্জীবন দন্ডপ্রাপ্তরা হল নাটোরের নলডাঙ্গা উপজেলার মোমিনপুর গ্রামের মৃত সোলেমান মন্ডলের ছেলে মিঠুন মন্ডল ও একই এলাকার আব্দুল জলিলের ছেলে আশরাফুল ইসলাম এবং আটকাদেশ প্রাপ্ত সাব্বির হোসেন একই এলাকার সাইফুল ইসলামের ছেলে।

মামলার এজাহার সুত্রে জজ আদালতের স্পেশাল পিপি অ্যাডভোকেট আনিসুর রহমান জানান, ২০২১ সালের ৩১ মে সকালে বাড়ীর পাশের একটি মাঠে ছাগল চড়াতে যায় ওই কিশোরী। এ সময় সেখানে থাকা ভুক্তভোগী কিশোরীর প্রতিবেশী অভিযুক্তরা ওই কিশোরীকে ডেকে নিয়ে যায় পাশের আখ ক্ষেতে। সেখানে মিঠুন মন্ডল তাকে ধর্ষণ করে এবং আশরাফুল ইসলাম ও সাব্বির পাহাড়া দেয়।

এ সময় ওই কিশোরীর চিৎকারে স্থানীয়রা এগিয়ে এসে মিঠুন মন্ডল ও আশরাফুলকে আটক করে এবং সাব্বির পালিয়ে যায়। পরে মিঠুন ও আশরাফুলকে পুলিশের কাছে সোপর্দ করা হয়। এ ঘটনায় ওই কিশোরী বাদী হয়ে তিনজনকে অভিযুক্ত করে থানায় মামলা দায়ের করেন।

মামলা দায়েরের পর পুলিশ সাব্বিবকে গ্রেফতার করে এবং অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে প্রতিবেদন দাখিল করেন। আদালতের বিচারক মামলার স্বাক্ষ্য প্রমান গ্রহন শেষে অভিযুক্তদের উপস্থিতিতে রায় ঘোষণা করেন।

Leave A Reply

Your email address will not be published.