নিয়ামতপুরে ত্রিবার্ষিক সম্মেলনকে ঘিরে চলছে নেতাকর্মীদের দৌড়ঝাপ

0 ১২৫
শাহজাহান শাজু, নিয়ামতপুর(নওগাঁ) প্রতিনিধি: দীর্ঘ ৬ বছর পর নওগাঁর নিয়ামতপুরে অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে উপজেলা আওয়ামী যুবলীগের ত্রিবার্ষিক সম্মেলন। আগামী মঙ্গলবার (১১ জুলাই) বিকেলে নিয়ামতপুর সরকারি কলেজ মাঠে অনুষ্ঠিত হতে যাওয়া সম্মেলনে নেতৃত্ব নির্বাচন নিয়ে চলছে নানা জল্পনা-কল্পনা আর ছুটাছুটি।
নেতা কর্মীদের চোখে মুখে নেই সস্থি।
উপজেলা আওয়ামী যুবলীগের সম্মেলনে সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক পদে নতুন ও পুরাতনদের সমন্বয় নাকি নতুন মুখের চমক আসবে তা নিয়ে চলছে বিভিন্ন জায়গায়, চায়ের
 চুলচেরা বিশ্লেষণ।
এদিকে সম্মেলন ঘিরে গুরুত্বপূর্ণ সড়ক ও অলিতে-গলিতে নানান রঙের ফেস্টুন, ব্যানার, পোস্টারে ভরে গেছে। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে নিজ নিজ পছন্দের নেতাদের পক্ষে প্রচারণা চালাচ্ছেন কর্মীরা। সব মিলিয়ে ব্যাপক উৎসাহ-উদ্দীপনা বিরাজ করছে সম্মেলনকে ঘিরে।
সম্মেলনের তারিখ ঘোষণার পর থেকে শীর্ষ পদ দখলে রাখতে নেতারা যে যার মত তদবির করে যাচ্ছে। শেষ মূহুর্তে এসে অনেকে ধরনা দিচ্ছেন আওয়ামী লীগের প্রভাবশালী নেতাদের কাছে।
দলীয় সূত্রে জানা গেছে, যোগ্যতায় যারা এগিয়ে রয়েছেন তারাই শীর্ষ পদ পাবেন। সেজন্য বিবেচনায় নেওয়া হবে সেই নেতার সাংগঠনিক দক্ষতা ও দলের প্রতি নিবেদিত কিনা? এর আগে ২০১৭ সালের ১৪ ফেব্রুয়ারীতে উপজেলা আওয়ামী যুবলীগের ত্রিবার্ষিক সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। সেই সম্মেলনে সভাপতি নির্বাচিত হোন সাদ্দাম হোসেন সুমন এবং সাধারণ সম্পাদক হোন মোত্তালিব হোসেন বাবর। কমিটির মেয়াদ উত্তীর্ণ হলেও খুড়িয়ে চলছিল যুবলীগের সাংগঠনিক কার্যক্রম।
জানা গেছে, সভাপতি পদে আলোচনায় রয়েছেন বর্তমান কমিটির সাধারণ সম্পাদক ও রসুলপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মোত্তালিব হোসেন বাবর, ভারপ্রাপ্ত সভাপতি আনোয়ার হোসেন সাগর, সহসভাপতি শেখ পলাশ, সহসম্পাদক আতিকুর রহমান এবং বাহাদুরপুর ইউনিয়ন যুবলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক রতন।
সাধারণ সম্পাদক নিয়ে আলোচনায় রয়েছেন উপজেলা ছাত্র লীগের সাবেক আহ্বায়ক ও জেলা ছাত্র লীগের সদস্য মাহাদী হাসান পায়েল,  বর্তমান কমিটির সহ-সাধারণ সম্পাদক নিতাই চন্দ্র দাস, দেলোয়ার হোসেন শিমুল, সাংগঠনিক সম্পাদক আনোয়ার হোসেন, স্বপন আহম্মেদ স্টার, দপ্তর সম্পাদক সনজিত দাস, অর্থ বিষয়ক সম্পাদক মোরশেদ আলম মিঠু, উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি মাহবুবুল আলম মাহমুদ, সদস্য মোজাম্মেল হকসহ অনেকের নাম শোনা যাচ্ছে।
১১ জুলাই সম্মেলন উদ্বোধন করবেন জেলা যুবলীগের সভাপতি খোদাদাদ খান পিটু। প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও খাদ্যমন্ত্রী বীরমুক্তিযোদ্ধা সাধন চন্দ্র মজুমদার এমপি। সম্মেলনে সন্মানিত বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন কেন্দ্রীয় যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক মাইনুল হোসেন খান নিখিল। প্রধান বক্তা হিসেবে উপস্থিত থাকবেন জেলা যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক বিমান কুমার রায়।
বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন কেন্দ্রীয় আওয়ামী যুবলীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক বিশ্বাস মুতিউর রহমান বাদশা, সাংগঠনিক সম্পাদক ডা. হেলাল উদ্দিন, কার্যনির্বাহী সদস্য আবু হাসান সিদ্দিকী মিলন, ডা. মোস্তাফিজুর রহমান, উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আবুল কালাম আজাদ, সাধারণ সম্পাদক জাহিদ হাসান বিপ্লব, উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ফরিদ আহম্মেদসহ অঙ্গ সংগঠনের নেতৃবৃন্দ।
সম্মেলনের বিষয়ে উপজেলা আওয়ামী যুবলীগের সাধারণ সম্পাদক মোত্তালিব হোসেন বাবর বলেন, সম্মেলনের জন্য সকলে মিলে কাজ করছি। সকল কাজ প্রায় শেষের দিকে, সম্মেলনের জন্য আমরা প্রস্তুত। গঠনতন্ত্র অনুসারে কাউন্সিলরদের ভোটে  সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত করা হওয়ার কথা, যদি সেটা না হয় কেন্দ্রীয় নেতারা এ বিষয়ে সিদ্ধান্ত নিবেন।

Leave A Reply

Your email address will not be published.