পাকিস্তানে হাসপাতালে হামলার নেপথ্যে ভারতের গোয়েন্দা সংস্থা

810

d5336234a38135ce8350c6658c578771-57a836e8183a4আন্তর্জাতিক ডেস্ক : পাকিস্তানের বালুচিস্তানের কোয়েটার একটি হাসপাতালে আত্মঘাতী বোমা হামলায় ভারতের গোয়েন্দা সংস্থা রিসার্চ অ্যান্ড অ্যানালাইসিস উইং (র) জড়িত। এ দাবি করেছেন বালুচিস্তানের মুখ্যমন্ত্রী সানাউল্লাহ জেহরি। সোমবার পাকিস্তানি টেলিভিশন চ্যানেল জিও নিউজকে এ কথা বলেন তিনি।

জেহরি বলেন, কুয়েটার হামলায় যে ‘র’ জড়িত তার প্রমাণ আমার কাছে রয়েছে। আমি প্রধানমন্ত্রী নওয়াজ শরিফ ও পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়কে তথ্যগুলো জানাব।

প্রাথমিক তদন্ত শেষ হওয়ার আগেই এ মন্তব্য করলেন জেহরি। তদন্তকারীরা এখনও বিস্ফোরণের ধরণ সম্পর্কেই নিশ্চিত হতে পারেননি। জেহরি জানিয়েছেন, হামলাটি ছিল আত্মঘাতী।

পুলিশ জানিয়েছে, এখনও তদন্ত চলছে। নিহতের সংখ্যা ৩০ বলে জানিয়েছে পুলিশ।

সোমবার সকালে বালুচিস্তান বার অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি অ্যাডভোকেট বিলাল কাসিকে গুলি করে হত্যা করে দুর্বৃত্তরা। কাসিকে হাসপাতালে দেখতে জড়ো হন অন্তত অর্ধশতাধিক আইনজীবী। এ সময় হাসপাতালের জরুরি বিভাগের কাছে একটি শক্তিশালী বোমার বিস্ফোরণ ঘটে।

বিস্ফোরণে প্রাথমিকভাবে অন্তত ৪২ জন নিহতের খবর পাওয়া গিয়েছে। আহত হয়েছেন আরও অর্ধশতাধিক। নিহতদের মধ্যে আইনজীবী, সাংবাদিক ও হাসপাতালের কর্মীরা রয়েছেন। তবে তাৎক্ষণিকভাবে হামলার দায় কেউ স্বীকার করেনি।

বেলুচিস্তানের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী সারফরাজ বুগতি বলেন, নিরাপত্তায় ঘাটতি থাকার কারণে এ ঘটনা ঘটেছে। আমি ব্যক্তিগতভাবে ঘটনাটির তদন্ত করাব। তিনি জানান, বিস্ফোরণের প্রকৃতি সম্পর্কে তাৎক্ষণিকভাবে কিছু বলা সম্ভব না। এর আগে হাসপাতালে কোনও হুমকি আসেনি। হামলাটি আত্মঘাতী হতে পারে বলেও উল্লেখ করনে তিনি।

পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী নওয়াজ শরিফ এ হামলার নিন্দা জানিয়েছেন। তিনি বলেছেন, কাউকেই প্রদেশটির শান্তিতে ব্যাঘাতে ঘটাতে দেওয়া হবে না।

উল্লেখ্য, গত এক দশক ধরে বালুচিস্তানে বেশ কিছু সহিংসতা ও টার্গেট কিলিংয়ের ঘটনা ঘটেছে। গত ১৫ বছরে সংখ্যালঘু শিয়া ও হাজারা সম্প্রদায়কে লক্ষ্য করে অন্তত ১ হাজার ৪০০টি হামলা হয়েছে।

আয়তনে পাকিস্তানের সবচেয়ে বড় প্রদেশটিতে বিচ্ছিন্নতাবাদী ও আল কায়েদা জঙ্গিরা বেশ সক্রিয়। আফগানিস্তান ও ইরানের সঙ্গে প্রদেশটির সীমান্ত রয়েছে। সূত্র: ডন।

x