বিরাট ক্যানভাসে নিজেকে রাঙাতে ব্যর্থ কোহলি

0 ৪৪
বিরাট কোহলি। ছবি : এএফপি

ফ্র্যাঞ্চাইজি ক্রিকেটে আইপিএলের চেয়ে বড় কিছু কি আছে? উত্তরটা এক শব্দে দেওয়া যায়—নেই। ক্রিকেট দুনিয়ার সবচেয়ে বড় ইভেন্ট তো আইপিএলই। যার আবেদন ক্ষেত্রবিশেষে জাতীয় দলের চেয়ে বেশি ক্রিকেটারদের কাছে। আইপিএলও দুহাত ভরে দিয়ে এসেছে খেলোয়াড়দের। এখান থেকে তৈরি হয়েছে অনেক তারকা। অর্থ, যশ, খ্যাতি—মিলেছে সবই।

সমকালীন ক্রিকেটে তিন ফরম্যাটেই তর্কাতীতভাবে সেরা ব্যাটার কোহলি। রান, সেঞ্চুরি, ম্যাচ জেতানো ইনিংস খেলা, মোমেন্টাম ধরা—কোথায় তাকে পিছিয়ে রাখবেন? শুদ্ধ ব্যাকরণে যেমন কাভার ড্রাইভ খেলেন, প্রয়োজনে ব্যাকরণের ব্যবচ্ছেদ ঘটিয়ে বল পার করেন সীমানার ওপার। চলতি আইপিএলেই তো সবচেয়ে বেশি রান এসেছে তার উইলো থেকে। তবু, কোহলি হয়ে রইলেন দুঃখী রাজপুত্র।

সর্বোচ্চ রান সংগ্রাহকের কমলা টুপিটা মাথায় দিয়ে বিদায় নিতে হয়েছে মাঠ থেকে। ১৭ বছরেও রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স বেঙ্গালুরুকে একটি শিরোপা এনে দিতে পারেননি কোহলি। তিনি বিশ্বকাপ জিতেছেন, চ্যাম্পিয়ন্স ট্রফি জিতেছেন। বাঘা বাঘা বোলারদের নত করেছেন তার ব্যাটের নিচে। এতকিছুর পরও পাওয়া হয়নি আইপিএল। আনমনে মাঠ ছাড়তে ছাড়তে নিজেই বোধহয় বহুবার নিজেকে প্রশ্ন করেছেন—কী করলে, কীভাবে করলে আইপিএলের শ্রেষ্ঠত্ব ছুঁতে পারব আমি?

কোহলি নিজেকে এই প্রশ্ন না করলেও তার শুভাকাঙ্খীরা, আরসিবির ভক্তরা প্রশ্নটির উত্তর খুঁজে ফেরেন। উত্তর নেই কোথাও। চলতি আইপিএলে বেঙ্গালুরুর শুরুটা ছিল হতাশাজনক। সেটি কাটিয়ে টানা ছয় ম্যাচ জিতে প্লে-অফে জায়গা করে নেয় দলটি। গ্রুপপর্বের শেষ ম্যাচে চেন্নাইয়ের বিপক্ষে অবিশ্বাস্য এক জয় তুলে নেয়, বিদায় করে দেয় মহেন্দ্র সিং ধোনির দলকে। আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে দক্ষিণ আফ্রিকা-নিউজিল্যান্ড যেমন শেষ হার্ডলটা পার হতে পারে না, আইপিএলে আরসিবির দশা একই। বারেবারে এত কাছে তবু কত দূরে সরে যায় শিরোপা।

নিজেকে প্রমাণের কিছু নেই কোহলির। আইপিএল না পেলে তার অমরত্বে এতটুকু আঁচড় পড়বে না। শুধু ভারতের ইতিহাসের নয়, ক্রিকেট আকাশের ধ্রুবতারা হয়েই জ্বলবেন তিনি। আইপিএল ২০২৪ এ তার পরিসংখ্যানে একটু তাকানো যাক। ১৫ ম্যাচে ৭৪১ রান। গড় ৬১.৭৫। অর্ধশতক আছে পাঁচটি। তার স্ট্রাইক রেট নিয়ে বেশ সমালোচনা হয়েছে। আসর শেষে সেদিকে তাকালে দেখা যাচ্ছে, কম নয় স্ট্রাইক রেটও। ১৫৪.৭০। তবু, বেলাশেষে ব্যর্থ কোহলি। বিরাট ক্যানভাসে বিজয়ী হিসেবে নিজেকে এবারও রাঙাতে পারলেন না তিনি।

Leave A Reply

Your email address will not be published.