বিরোধীদের সঙ্গে মিয়ানমার জান্তার সংলাপের আহ্বান চীনের

১৪১
চীনের পররাষ্ট্রমন্ত্রী ওয়াং ই। ছবি : সংগৃহীত

মিয়ানমারে বিরোধীদের সঙ্গে সংলাপ আয়োজনের জন্য জান্তা নেতাদের প্রতি আহ্বান জানিয়েছে চীন। মিয়ানমার সফররত চীনের পররাষ্ট্রমন্ত্রী ওয়াং ই এ আহ্বান জানান। চীনের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় প্রকাশিত মন্ত্রীর বক্তব্যে এমনটি জানানো হয়। সিএনএন তাদের প্রতিবেদনে আজ সোমবার এ তথ্য জানায়।

সাংবিধানিক ও আইনি কাঠামোর মধ্যে মিয়ানমারে গণতান্ত্রিক রূপান্তর কার্যক্রম পুনরায় শুরুর আহ্বান জানান চীনের পররাষ্ট্রমন্ত্রী। তিনি বলেন, ‘মিয়ানমারে সব পক্ষের অংশগ্রহণে রাজনৈতিক সংলাপকে আমরা উৎসাহিত করব।’

মিয়ানমারের রাজনৈতিক ও সামাজিক স্থিতিশীলতা ফিরে আশার আশাবাদ ব্যক্ত করে এ লক্ষ্যে পৌঁছাতে দেশটিকে সহযোগিতার আশ্বাস দিয়েছেন চীনের পররাষ্ট্রমন্ত্রী।

চীনের পররাষ্ট্রমন্ত্রী ওয়াং ই বলেন, ‘চীন মিয়ানমার পরিস্থিতি গভীরভাবে পর্যবেক্ষণ করছে। মিয়ানমারে নিজস্ব পন্থায় গঠনমূলক কোনো ভূমিকা নিতে বদ্ধপরিকর চীন। মিয়ানমারের জনগণের জীবনমান উন্নয়ন, অর্থনৈতিক স্থিতিশীলতা পুনর্বহাল ও তৃণমূল পর্যায়ের মানুষজনের অধিকার ও স্বার্থ প্রতিষ্ঠায় মিয়ানমারের সঙ্গে যৌথভাবে কাজ করব আমরা।’

২০২১ সালের ১ ফেব্রুয়ারি সামরিক অভ্যুত্থানে বেসামরিক নেত্রী অং সান সুচিকে ক্ষমতা থেকে অপসারণের পর প্রথমবার মিয়ানমার সফরে এসেছেন চীনের পররাষ্ট্রমন্ত্রী ওয়াং ই। তাঁর এই সফরকে মিয়ানমারের সামরিক জান্তাকে চীনের বৈধতা দেওয়া হিসেবে দেখছেন বিশেষজ্ঞেরা।

এর আগে চীনের শীর্ষস্থানীয় নেতা প্রেসিডেন্ট শি জিনপিং ২০২০ সালে মিয়ানমার সফর করেন। মিয়ানমারে চীনের অর্থায়নে বেশকিছু বড় প্রকল্প নিয়ে আলোচনা করতে সেবার সফর করেন চীনের প্রেসিডেন্ট।

Comments are closed.