বেতার শিল্পীদের সম্মানী বাড়নো ও উৎসে কর প্রত্যাহারের দাবিতে মানববন্ধন

0 ৫৪

স্টাফ রিপোর্টার: বাংলাদেশ বেতারের শিল্পীদের সম্মানী বাড়নো ও উৎসে কর প্রত্যাহারের দাবিতে মানববন্ধন কর্মসূচি পালিত হয়েছে।

সোমবার (৭ আগস্ট) বেলা ১১টার দিকে বাংলাদেশ বেতারের রাজশাহী কেন্দ্রের সামনে স্থানীয় শিল্পীরা এ মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করেন।

এ সময় সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। সমাবেশে সভাপতিত্ব করেন বেতার শিল্পী সংস্থার সভাপতি মনোয়ারুল ইসলাম বকুল।

এতে বেতার শিল্পীরা জানান, বর্তমান ঊর্ধ্বগতির বাজারে শিল্পীদের যে সম্মানী দেওয়া হয় তা কোনোভাবেই যথাযথ নয়। একজন শিল্পী তার শিল্প পরিবেশনা করে মাত্র ২৫০ টাকা সম্মানী ভাতা পায়। এর থেকে তাকে আবার ১০ শতাংশ উৎস কর দিতে হয়। বিষয়টি শিল্পীদের জন্য অত্যন্ত আক্ষেপ ও গভীর উদ্বেগের। এমনিতে সম্মানী ভাতা কম, তার ওপরে অর্থ কর্তন, তাদের মেধা, মনন ও সৃজনশীলতার ক্ষেত্রে প্রতিবন্ধকতা সৃষ্টি করেছে। মাত্র ২৫০ টাকা দিয়ে একজন শিল্পী কোনোমতেই চলতে পারেন না। আর তাদের যে সম্মানী সেটিও তারা মানুষের কাছে বলতে পারেন না। সরকার যেমন বিভিন্ন ভাতা চালু করে মানুষকে সচ্ছলতা এনেছেন, তেমনি শিল্পীদেরও সম্মানি বাড়ানো এবং উৎসে কর প্রত্যাহার করে তাদের ভালো রাখতে হবে।

তাই আজকের এ মানববন্ধন কর্মসূচি থেকে রাজশাহী বেতারে কর্মরত সংগীত, বাদ্য, কণ্ঠ, অভিনয়, নৃত্য, গম্ভীরা, সংবাদকর্মীসহ সব শিল্পী ১০ ভাগ উৎসে কর প্রত্যাহার ও সম্মানী বাড়ানোর জন্য দাবি জানানো হয়।

মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন রাজশাহী বেতার নাট্যকার-নাট্যশিল্পী সংসদের সভাপতি ওয়াজেদ আলী খান, সাধারণ সম্পাদক কামার উল্লাহ সরকার, বেতার সংগীতশিল্পী সংস্থার সাধারণ সম্পাদক আনিসুর রহমান, সংবাদ শিল্পী সমিতির সাধারণ সম্পাদক মাসুম আখতারুজ্জামান। এছাড়া রাজশাহী বেতারের বিভিন্ন পর্যায়ের শিল্পী কলাকৌশলী ও কর্মকচারীরা উপস্থিত ছিলেন।

মানববন্ধন শেষে শিল্পীরা জেলা প্রশাসকের মাধ্যমে তথ্যমন্ত্রীকে স্মারকলিপি দেন। #

Leave A Reply

Your email address will not be published.