ব্যাটিং কোচের নামই জানেন না সাকিব!

0 81

জন লুইস বাংলাদেশের ব্যাটিং কোচ হয়েছেন বেশ কয়েকদিন হলো। ওয়েস্ট ইন্ডিজ সিরিজ শুরুর আগেই থেকেই জাতীয় দলের সঙ্গে কাজ করে আসছেন ইংলিশ এই কোচ। কিন্তু এতোদিনেও ব্যাটিং কোচের নামটি মাথায় ‘সেভ’ হয়নি সাকিব আল হাসানের। নেটে অনুশীলনের সময় ব্যাটিং কোচকে ডাকতে সতীর্থদের সাহায্য নিতে হলো বাঁহাতি এই অলরাউন্ডারকে।

(adsbygoogle = window.adsbygoogle || []).push({});

ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে তৃতীয় ও শেষ ওয়ানডের আগে রবিবার (২৪ জানুয়ারি) চট্টগ্রামের জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে মুশফিকুর রহিম ও নাজমুল হোসেন শান্ত তখন নেটে ব্যাটিংয়ে ব্যস্ত। এই দুই ব্যাটসম্যানকে একাধারে বোলিং করে যাচ্ছিলেন তাসকিন আহমেদ, রুবেল হোসেন, হাসান মাহমুদ, তাইজুল ইসলাম, মেহেদী হাসান মিরাজরা। সাকিব আল হাসান তখন ব্যাটিংয়ের জন্য নেটের পাশেই অপেক্ষারত। দেরি হবে বুঝতে পেরে বাইরেই কিছুটা সময় শ্যাডো করে নেন সাকিব।

এরপর আসে তার ব্যাটিংয়ের পালা। নেটে গিয়ে স্টাম্প গার্ড নেওয়ার প্রস্তুতি নিচ্ছিলেন সাকিব। লেগ স্টাম্পের গার্ড ঠিক আছে কিনা জানতে উইকেটের অপর প্রান্তে দাঁড়ানো ব্যাটিং কোচ জন লুইসকে খুঁজে পান তিনি। কিন্তু কোচের নাম মাথায় না থাকায় তাকে ডাকতে পারছিলেন না বাংলাদেশ অলরাউন্ডার।

প্রথমে ইশারায় কোচকে ডাকতে থাকেন সাকিব। কিন্তু কোচ অন্য খেলোয়াড়ের দিকে দৃষ্টি দিয়ে রাখায় সাকিবের ইশারা দেখতে পারেননি। একবার ‘ব্যাটিং কোচ’ বলে ডাকলেও লুইসের কানে তা পৌঁছায়নি। কোচ যেন না বোঝেন, সেটা নিশ্চিত করে সতীর্থদের উদ্দেশ্যে সাকিব বাংলায় বলে ওঠেন, ‘এই, ব্যাটিং প্রশিক্ষকের নাম কীরে’। পাশের নেটেই করতে থাকা শান্ত কোচের নাম বলে দেন।

এরপর জন বলে ডেকে কোচের দৃষ্টি ফেরান সাকিব। দেখতে বলেন স্টাম্পের গার্ড। স্টাম্পের গার্ড ঠিক আছে জানালে লুইসের সঙ্গে যেন রসিকতায় মেতে ওঠেন বাংলাদেশ প্রাণ ভোমরা।

সাকিব বলে ওঠেন, ‘আমি তোমাকে বিশ্বাস করি না, যদিও আমার হাতে বেশি অপশন নেই।’ সাকিব যে মজা করছেন, সেটা বুঝতে পেরেও লুইস প্রশ্ন করেন, ‘আমাকে তুমি কেন বিশ্বাস করো না।’

ব্যাটিং কোচের প্রশ্নের উত্তর আর দেননি সাকিব। ব্যাটিংয়ে মন বসান তিনি। শুরুতে তাসকিন-হাসানদের গতিময় ডেলিভারি মোকাবিলা করতে কিছুটা বেগই পোহাতে হয়েছে সাকিবকে। তাসকিনের করা প্রথম ডেলিভারিতেই পেছনে ক্যাচ দেন বিশ্বসেরা এই অলরাউন্ডার। এরপর যতো সময় গড়িয়েছে, ব্যাট হাতে সাবলীল হয়ে উঠেছেন তিনি। শেষের দিকে গিয়ে শট অনুশীলন করেছেন অভিজ্ঞ এই ক্রিকেটার।

প্রথম দুই ওয়ানডে দিয়েই সিরিজ জয় নিশ্চিত হয়ে গেছে বাংলাদেশের। দুই অনায়াস জয়ে ২-০ ব্যবধানে সিরিজ জিতেছ তামিম ইকবালের দল। তৃতীয় ও শেষ ওয়ানডে খেলতে ২৫ জানুয়ারি ক্যারিবীয়দের বিপক্ষে মাঠে নামবে তামিম ইকবালের দল। ম্যাচটি বেলা সাড়ে ১১টায় শুরু হবে।

Leave A Reply

Your email address will not be published.

x