মেক্সিকোর অভিবাসী ইনস্টিটিউটে আগুন, নিহত ১০

0 ১৮৬
দুর্ঘটনাস্থলের বাইরে আহাজারি করছেন ভেনেজুয়েলার এক নারী। ছবি : রয়টার্স

মেক্সিকোর যুক্তরাষ্ট্র সীমান্তবর্তী শহর সিউদাদ জুয়ারেজের ন্যাশনাল মাইগ্রেশন ইনস্টিটিউটের (আইএনএম) ভবনে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটেছে। দেশটির স্থানীয় সময় সোমবার রাতের এই আগুনে অন্তত ১০ জন নিহত হয়েছেন। তবে, স্থানীয় গণমাধ্যমগুলো বলছে, নিহতের সংখ্যা আরও অনেক বেশি। আইএনএমের ওই ভবনে আটক অভিবাসন প্রত্যাশীদের  রাখা হতো বলে জানা গেছে।

ফরাসি সংবাদ সংস্থা এএফপির বরাতে আজ মঙ্গলবার (২৮ মার্চ) এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানিয়েছে এনডিটিভি।

আইএনএমের ভবনে আগুনের সময় ঘটনাস্থলেই ছিলেন এএফপির একজন সাংবাদিক। দমকলকর্মীরা ও উদ্ধারকারীরা আইএনএম পার্কিং এরিয়াতে বেশ কয়েকটি মরদেহ কম্বলে পেঁচিয়ে রাখতে দেখেছেন ওই গণমাধ্যমকর্মী। তবে, মোট কতজন মারা গেছেন সেই বিষয়টি নিশ্চিত করেনি আইএনএম।

স্থানীয় সংবাদমাধ্যমগুলো নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক সূত্রের বরাত দিয়ে বলছে, আগুনে কয়েকডজন মানুষের মৃত্যু হয়েছে।

উদ্ধারকারী দলের এক কর্মী নিজের নাম প্রকাশ না করার শর্তে গণমাধ্যমকে বলেন, আইএনএমএতে প্রায় ৭০ জন অভিবাসী ছিলেন, যার মধ্যে বেশিরভাগই ভেনেজুয়েলার।

এনডিটিভি বলছে, সোমবার মধ্যরাতে আইএনএম কার্যালয়ে আগুন লাগে। এরপরেই সেখানে ফায়ার সার্ভিসের কয়েকটি গাড়ি ও ডজনখানেক অ্যাম্বুলেন্স পৌঁছায়।

সিউদাদ জুয়ারেজ শহরটি যুক্তরাষ্ট্রের টেক্সাস অঙ্গরাজ্যের এল পাসো শহরের কাছেই অবস্থিত। এই দুই শহরের মধ্যে দুদেশের সীমান্ত রয়েছে। সম্প্রতি মেক্সিকোর শহরটিতে আটকে পড়েছে যুক্তরাষ্ট্রে প্রবেশ করতে চাওয়া অভিবাসন প্রত্যাশীরা।

আন্তর্জাতিক অভিবাসন সংস্থার (আইওএম) তথ্য মতে, ২০১৪ সাল থেকে অবৈধভাবে যুক্তরাষ্ট্রে প্রবেশ করতে চেয়ে নিহত বা নিখোঁজ হয়েছে সাত হাজার ৬৬১ জন।

Leave A Reply

Your email address will not be published.