যথাযোগ্য মর্যাদায় বিএমডিএ‘র মহান স্বাধীনতা ও জাতীয় দিবস উদযাপন

0 ১৫২

স্টাফ রিপোর্টার: দেশের ৫৩তম মহান স্বাধীনতা দিবস ও জাতীয় দিবস আজ ২৬ মার্চ। জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নির্দেশে পাকিস্তানি হানাদারদের প্রতিহত করতে মহান মুক্তিযুদ্ধ শুরু করেছিলো বাঙালী জাতি। নয় মাসের রক্তক্ষয়ী যুদ্ধের মাধ্যমে জন্ম হয় বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের লাল-সবুজের স্বাধীন বাংলাদেশ। এ এক আনন্দের দিন। তবে আমাদের স্বাধীনতার ইতিহাস যেমন গৌরবের, তেমনি বেদনারও। অনেক রক্ত ও আত্মত্যাগের বিনিময়ে অর্জিত হয়েছে আমাদের স্বাধীনতা।

আর এই দিনটি যথাযোগ্য মর্যাদায় পালন করেছে বরেন্দ্র বহুমুখী উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ (বিএমডিএ)।  রোববার (২৬ মার্চ) বরেন্দ্র বহুমুখী উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের প্রধান কার্যালয় রাজশাহী বরেন্দ্র ভবনে ও সকল জোন ও রিজিয়ন অফিসে যথাযোগ্য মর্যাদায় পালন করা হয় দিবসটি।

সূর্যোদয়ের সঙ্গে সঙ্গে যথাযোগ্য মর্যাদায় জাতীয় পতাকা উত্তোলন ও রাজশাহী নগরীর কোর্ট এলাকায় জেলা প্রশাসকের কার্যালয় চত্বরে শহীদ মুক্তিযোদ্ধাদের স্মৃতি স্তম্ভে পুষ্পস্ববক অর্পনের মধ্য দিয়ে দিবসের কর্মসূচী শুরু হয়।

সকালে রাজশাহী জেলা প্রশাসকের কার্যালয় চত্বরে শহীদ মুক্তিযোদ্ধাদের স্মৃতি স্তম্ভে বরেন্দ্র বহুমুখী উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের নির্বাহী পরিচালক আব্দুর রশীদের উপস্থিতিতে ফুলদিয়ে শ্রদ্ধা জানায় বরেন্দ্র বহুমুখী উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের কর্মকর্তা কর্মচারীরা।

পরে বিএমডিএ সম্মেলন কক্ষ-১ এ মহান স্বাধীনতা দিবস উপলক্ষে ‘জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এর ঐতিহাসিক নেতৃত্ব ও দেশের উন্নয়ন’ শীর্ষক আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। আলোচনা সভার শুরুতে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান সহ ত্রিশ লক্ষ শহীদদের স্মরণে এক মিনিট নিরবতা পালন করা হয়। নিরবতা পালন শেষে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান সহ তার পরিবারবর্গ ও ত্রিশ লক্ষ শহীদদের আত্মার মাগফিতার কামনা করে দোয়া করা হয়। এরপর ‘জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান জীবনীর নিয়ে একটি ডকুমেন্টরি আলোকচিত্রর মাধ্যমে প্রদর্শন করা হয়।

বরেন্দ্র বহুমুখী উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের নির্বাহী পরিচালক আব্দুর রশীদের সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় উপস্থিত ছিলেন, অতিঃ প্রধান প্রকৌশলী জনাব মোঃ শামসুল হোদা, অতিঃ প্রধান প্রকৌশলী জনাব ড. মোঃ আবুল কাসেম , তত্ত্বাবধায়ক প্রকৌশলী ও সচিব জনাব এটিএম মাহফুজুর রহমান, তত্ত্বাবধায়ক প্রকৌশলী জনাব মোঃ শরীফুল হক, তত্ত্বাবধায়ক প্রকৌশলী জনাব মোঃ নাজিরুল ইসলাম, তত্ত্বাবধায়ক প্রকৌশলী মোঃ আব্দুল লতিফ, তত্ত্বাবধায়ক প্রকৌশলী জনাব মোঃ শহীদুর রহমান, নির্বাহী প্রকৌশলী জনাব শিবির আহমেদ, প্রকল্প পরিচালক এটিএম রফিকুল ইসলাম, নির্বাহী প্রকৌশলী জনাব তোফাজ্জল আলী সরকার, নির্বাহী প্রকৌশলী জনাব মোঃ তরিকুল ইসলাম, নির্বাহী প্রকৌশলী (ভারপ্রাপ্ত) জনাব মোঃ নাজমুল হুদা, বিএমডিএ কর্মচারী লীগ রাজ-৩০৪২ সিবিএ সভাপতি জনাব মোঃ মেসবাউল হক, অর্থ সম্পাদক মোঃ মামুন হোসেন, বিএমডিএ কর্মচারী ইউনিয়ন রাজ-১৫০০ এর সভাপতি আব্দুস সাত্তার, ক্রীয়া ও সাংস্কৃতিক সম্পাদক ইমরুল কায়েসসহ বরেন্দ্র উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের সদর দপ্তর ও অতিরিক্ত প্রধান প্রকৌশলী, তত্বাবধায়ক প্রকৌশলী, প্রকল্প পরিচালক, নির্বাহী প্রকৌশলী, উপ-ব্যবস্থাপক (কৃষি), মনিটরিং অফিসার ও সহকারী প্রকৌশলীবৃন্দ সহ সকলে উপস্থিত ছিলেন।

এদিকে বিএমডিএ প্রধান কার্যালয়সহ বরেন্দ্র বহুমুখী উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের সকল কার্যালয়ে আলোকসজ্জা সাজানো হয়।
উল্লেখ্য, একাত্তরের ২৫ মার্চ কালরাতে পাকিস্তানি সামরিক বাহিনী বাঙালিদের ওপর অতর্কিত গণহত্যা অভিযান ‘অপারেশন সার্চলাইট’ শুরু এবং বাঙালী জাতির অবিসংবাদিত নেতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে গ্রেফতার করে। গ্রেফতারের পূর্বে বঙ্গবন্ধু ২৬ মার্চ রাতের প্রথম প্রহরে ঢাকায় বাংলাদেশের স্বাধীনতা ঘোষণা করেন।

Leave A Reply

Your email address will not be published.