যে ৫ ধরনের নারী থেকে সাবধান পুরুষেরা

0 20

লাইফস্টাইল: নারী-পুরুষের পারস্পরিক আকর্ষণ সেই আদিম কাল থেকেই। সেই আকর্ষণ থেকেই নারী-পুরুষ পরস্পরের প্রেমে মজেন, মন দেয়া নেয়া হয়। কিন্তু একটা সময় আসে, যখন দেখা যায়, প্রেমিক পুরুষ বুঝতে পারে তার মনের মানুষটি মনের মতো নয়। তাই যেকোনও নারীর সঙ্গে সম্পর্কে জড়ানোর আগে ৫টি দিক অবশ্যই খেয়াল করুন। এবং এই ৫ ধরনের নারীর সঙ্গে সম্পর্ক থেকে বিরত থাকুন।

১) অর্থ সম্পদের লোভ: যেসব নারী ভালোবাসার নামে আপনার কাছ থেকে এটা-সেটা নিয়মিতই চেয়ে নেয় তার থেকে দূরত্ব বজায় রাখুন। তাকে এড়িয়ে চলুন। বুঝতে হবে ওই নারী শুধুমাত্র অর্থের লোভেই আপনার সঙ্গে প্রেমের অভিনয় করছে। তার মধ্যে সত্যিকারের ভালোবাসা নেই। মনে রাখতে হবে, একজন লোভী প্রেমিকা বা স্ত্রী একাই আপনার জীবনটাকে তছনছ করে দেয়ার জন্য যথেষ্ট।

২) অতিরিক্ত স্মার্ট ও অহংকারী: এ ধনের নারীরাও বিপদজনক। স্মার্ট সঙ্গিনী তো সবাই চায়। কিন্তু অতিরিক্ত স্মার্ট নারীদের সাথে মিশতে কিছুটা সাবধানতা অবলম্বন করা উচিত। খুব বেশি স্মার্ট ধ্যান-ধারণার নারীর সাথে আপনার মনের মিল হওয়া কঠিন। অতিরিক্ত স্মার্ট নারীরা সর্বদাই অহংকারী হয়। তাদের মধ্যে সামাজিকতা কম।

৩) পরনির্ভরশীল নারী: যেসব নারীরা শুধু তার প্রেমিক কিংবা স্বামীর ওপর শতভাগ নির্ভর করে থাকে তাদের সঙ্গে জীবন কাটানো খুব কঠিন। খেয়াল করবেন, অল্প একটু হেঁটেই আর হাঁটতে চান না, অল্পক্ষণ দাঁড়ালেই ক্লান্ত হয়ে যান, সব কাজই আরেকজনকে করে দিতে হয়, সামান্য কিছুতেই ভেঙে পড়েন- এমন নারীতের সঙ্গ ত্যাগ করাই পুরুষ সঙ্গীর জন্য উত্তম।

৪) স্বল্প বসনা নারী: পুরুষ সব সময়ই নারীকে আকর্ষণীয় রূপে দেখতে চায়। তাই বলে নিজের প্রেমিকা কিংবা স্ত্রীকে স্বল্প বসনে দেখতে পছন্দ করেন না। বয়সের সঙ্গে খাপ না খেলেও ছোট ছোট পোশাক পড়া কিংবা বেমানান পোশাকের প্রতি বেশি আকর্ষণ- এমন নারীদের পাল্লায় পড়বেন না। কারণ, এইসব নারীরা একটু অশালীনই হয়ে থাকে।

৫) বেশি গম্ভীর নারী: কথা কম বলাই ভালো। তাই বলে পেটে বোমা মারলেও যাদের মুখ থেকে কথা বের হয় না সেইসব নারীদের থেকে দূরত্ব বজায় রাখাই ভালো। কারণ এ ধরনের নারীরা গোপনে বড় ধরনের কাণ্ড ঘটাতে পটু। কারণ, চাপা স্বভাবের নারীরা মনের ভেতরে সব ক্ষোভ লুকিয়ে রাখে। এ ধাঁচের নারীদের সঙ্গে জীবনে সুখ আর হাসিখুশি খুঁজে পাওয়া যায় না।

Leave A Reply

Your email address will not be published.