রাবিতে ‘শিক্ষার মৌলিক লক্ষ’ শীর্ষক সেমিনার অনুষ্ঠিত

0 ১৪০
রাবি প্রতিনিধি:  রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ে (রাবি) ‘শিক্ষার মৌলিক লক্ষ’ শীর্ষক সেমিনার ও ইফতার মাহফিল অনুষ্ঠিত হয়েছে। রোববার (৯ এপ্রিল) বিকেল ৫টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের টিএসসিতে বাংলাদেশ আহলেহাদীছ যুবসংঘের আয়োজনে এ সেমিনার অনুষ্ঠিত হয়।
এসময় প্রধান অতিথির বক্তব্যে বাংলাদেশ আহলেহাদীছ আন্দোলনের আমির ড. মুহাম্মদ আসাদুল্লাহ আল-গালিব বলেন, ইসলামি চেতনাই প্রত্যেক মানুষের প্রকৃত চেতনা। ইসলামি চেতনা যদি ধ্বংস হয়ে যায় তাহলে দুনিয়া থেকে ইসলাম ধ্বংস হয়ে যাবে। কুরআন গবেষণার কোন সুযোগ আমাদের বিশ্ববিদ্যালয়গুলোতে নেই। একটা মানুষের মৌলিক ধর্ম হবে বই পড়া। কোন ধর্মের শুরুতে ‘পড়ো’ সম্পর্কিত কিছু বলা নেই কিন্তু ইসলাম ধর্মের ধর্মগ্রন্থ কুরআনের শুরুই হয়েছে ‘ইকরা’ বা পড়া দিয়ে।
তিনি আরও বলেন, ইসলামকে প্রতিষ্ঠা করতে ৩টি বিষয় প্রয়োজন হয় ১.তাওহিদ ২. রিসালাত ৩.আখেরাত। যুবশক্তি একটি সমাজের প্রাণশক্তি। আমাদের সকলকে ইসলামের জন্য ঐক্যবদ্ধভাবে হতে হবে। একজন শিক্ষার্থীর জন্য ডিগ্রি কিছুই না, নিজের অর্জিত দক্ষতাই আসল। তাই সকলকে নিজের যোগ্যতা বৃদ্ধি করতে হবে। আজ আরবী ও ইসলামিক স্টাডিজের মতো ইসলামী জ্ঞান অর্জন করার মতো বিভাগগুলোর বিরুদ্ধে নানা ষড়যন্ত্র হচ্ছে বলে তিনি মন্তব্য করেন।
বিশ্ববিদ্যালয়ের সহকারী প্রক্টর এবিএম সরোয়ার আলম বলেন, শিক্ষার মৌলিক লক্ষ্য কী তা আমাদের জানতে হবে! আমরা যদি ইসলামের শিক্ষা নিয়ে চলতে চাই তাহলে আমাদের জীবন মসৃন হবে। রিসালাত, আখিরাত এবং আল্লাহর তৌহিদকে সামনে রেখে আমাদের শিক্ষা ব্যবস্থা গড়ে তুলতে হবে।
রাবি শাখা বাংলাদেশ আহলেহাদীছ যুবসংঘের সভাপতি রবীউল ইসলামের সভাপতিত্বে এসময় উপস্থিত ছিলেন আর-মারকাযুল ইসলামী আস-সালাফী ভাইস প্রিন্সিপাল ড. নূরুল ইসলাম, বাংলাদেশ আহলেহাদীছ যুবসংঘের কেন্দ্রীয় সভাপতি শরীফুল ইসলাম মাদানী, হাদীছ ফাউন্ডেশন শিক্ষা বোর্ডের চেয়ারম্যান ড. আহমাদ আব্দুল্লাহ ছাকিব।
এসময় ‘শিক্ষার মৌলিক লক্ষ’ বিষয়ক কুইজ প্রতিযোগিতায় ৩০জন বিজয়ী শিক্ষার্থীর হাতে পুরস্কার তুলে দেওয়া হয়।
এছাড়াও সেমিনার ও ইফতার মাহফিলে উপস্থিত ছিলেন আহলেহাদীছ আন্দোলনের যুবসংঘের ৫ শতাধিক সদস্য।

Leave A Reply

Your email address will not be published.