রৌমারীতে অধ্যক্ষ’র বিরুদ্ধে গাছ কাটার অভিযোগ

0 ২১০

রৌমারী (কুড়িগ্রাম) প্রতিনিধি: কুড়িগ্রামের রৌমারী উপজেলার চরশৌলমারী ডিগ্রি কলেজের অধ্যক্ষ্যের বিরুদ্ধে অবৈধ ভাবে ৫ টি গাছ কাটার অভিযোগ উঠেছে। করোনা মহামারিতে অনেকটা গোপনে এ গাছগুলো কাটা হয়। বৃহস্পতিবার (৫ আগস্ট) দুপুরে সরেজমিন গিয়ে গাছের গুড়াসহ ঢুমগুলো দেখা যায়।

কলেজের একটি দায়িত্বশীল ও স্থানীয় সূত্র জানা গেছে, কলেজের ফসলি জমিতে রোপন করা ৪টি ইউক্লিটার ও ১টি ঔষধি অর্জুণ বড় গাছ কাটা হয়েছে।

এ গাছগুলো স্থানীয় এক গাছ ব্যবসায়ীর কাছে ৭০ হাজার টাকায় বিক্রি করা হয়েছে। অধ্যক্ষের এমন কর্মকান্ডে স্টাফদের মধ্যে চরম ক্ষোভ ও অসন্তোষ বিরাজ করছে। গাছগুলো কাটার বিষয় কোন প্রকার রেজুলেশন করা হয়নি। শিক্ষকরা বলছেন, অধ্যক্ষের একক সিদ্ধান্তে এ গাছগুলো কাটা হয়।

কলেজের একাধিক সিনিয়র শিক্ষক বলেন, গাছ কাটার সময় অধ্যক্ষ তাদের অবগত করেননি। তবে পরবর্তীতে বিভিন্ন মাধ্যমে গাছ কাটার বিষয়টি তারা জানতে পারেন।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে চরশৌলমারী ডিগ্রি কলেজের অধ্যক্ষ ফরহাদ আলী বলেন, কলেজের গাছগুলো বর্গাচাষী কেটে বিক্রি করেছে। তিনি আরও বলেন, নিয়ম অনুসারে তারা পরিচর্যা করেছে তাই তারাই কেটেছে। এখানে আমি কোন অর্থ লেনদেন করিনি।

এ প্রসঙ্গে রৌমারী উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ও কলেজ সভাপতি আল ইমরান জানান, গাছ কাটার বিষয় আমি কিছুই জানি না। তবে খোঁজ খবর নিয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Leave A Reply

Your email address will not be published.