লালপুরে গভীর রাতে দোকান চুরি, সিসিটিভি ফুটেজ দেখে মূল হোতা আটক

0 ১৭০

প্রতিনিধি, লালপুর (নাটোর) : নাটোরের লালপুর উপজেলার দুড়দুড়িয়া ইউনিয়নের ভেল্লাবাড়ীয়া বাজারে শুক্রবার (১৩ আগস্ট) দিবাগত রাতে দোকান ঘরের টিন কেটে নগদ ২০ হাজার টাকা সহ ১ লক্ষ টাকার মালামাল চুরির ঘটনা ঘটেছে। এ ঘটনায় সিসিটিভি ফুটেজ দেখে চুরির মূল হোতা আসলাম সহ তার স্বীকারোক্তির উপর ভিত্তি করে আরো ৩ জনকে আটক করে এলাকাবাসী।

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, শুক্রবার রাতে ভেল্লাবাড়ীয়া বাজারের বড় মুদি ব্যবসায়ী আনিসুর রহমান তার দোকান বন্ধ করে রাত নয়টার দিকে বাড়ী চলে যায়। পরের দিন শনিবার (১৪ আগস্ট) সকাল সাতটার দিকে তার দোকানের সাটার খুলে দেখে তার দোকানের শাওনির তিন কাটা এবং তার ক্যাশ বাক্স সহ অনেক মালামাল হারিয়ে গেছে।

দোকান থেকে বেরিয়ে ব্যবসায়ী আনিসুর চিৎকার-চেঁচামেচি শুরু করলে, স্থানীয় জনগণ দোকানের সিসিটিভি ক্যামেরা ফুটেজ দেখে ইউনিয়নের কালুপাড়া গ্রামের আসাদুল ইসলামের ছেলে আসলাম উদ্দিন (৩৫) কে চোর শনাক্ত করে।

পরে এলাকার জনগণ সহ চৌকিদারের সহায়তায় আসলামকে আটক করে দুড়দুড়িয়া ইউনিয়ন পরিষদের সামনে নিয়ে এসে জিজ্ঞাসাবাদের এক পর্যায়ে তার স্বীকারোক্তির উপর ভিত্তি করে রামকৃষ্ণপুর গ্রামের মৃত নছিম উদ্দিনের ছেলে বাজারের চা দোকানদার আজিরুল (৩০), জামশেদ আলীর ছেলে হানিফ (৩৫) ও টুনি মন্ডলের ছেলে রতন আলী (২৮) কে আটক করে।

আটকের সময় আসলামের বাড়ি থেকে চুরিকৃত নগদ টাকা এবং মোবাইলের রিচার্জ কার্ড উদ্ধার করা হয়। খবর পেয়ে আটক ৪ জনকে উদ্ধার করে থানায় নিয়ে গেছে লালপুর থানা পুলিশ।

এ ব্যাপারে লালপুর থানা ওসি ফজলুর রহমান জানান, ঘটনাস্থল থেকে জনতাদের আটককৃত ৪ জনকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য থানায় আসা হয়। জিজ্ঞাসাবাদে আসলামের নিকট প্রাপ্ত তথ্যের ভিত্তিতে চুরি কৃত মামলামাল আসলামের বাড়ি থেকে উদ্ধার করা হয়েছে।

বাকী ৩ জনের এ ঘটনায় সম্পৃক্ততা না পাওয়ায় তাদের প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদ শেষে ছেড়ে দেওয়া হয়েছে। এ বিষয়ে দোকানদার আনিসুর রহমান বাদী হয়ে একটি অভিযোগ দায়ের করেছেন।

Leave A Reply

Your email address will not be published.