চুমু দিয়ে বিতর্কে নওয়াজউদ্দিন

0 ১৫৮

বলিউডের আলোচিত অভিনেতা নওয়াজউদ্দিন সিদ্দিকী। তার পরবর্তী সিনেমা ‘টিকু ওয়েডস শেরু’। এ সিনেমায় ২১ বছর বয়সী অবনীত কৌরের বিপরীতে অভিনয় করেছেন ৪৯ বছর বয়সী নওয়াজউদ্দিন। এর মাধ্যমে রুপালি পর্দায় অভিষেক হতে যাচ্ছে জনপ্রিয় টিভি অভিনেত্রী অবনীতের।

বুধবার (১৪ জুন) মুক্তি পেয়েছে ‘টিকু ওয়েডস শেরু’ সিনেমার ট্রেইলার। এতে ২১ বছরের ছোট অভিনেত্রীর সঙ্গে নওয়াজউদ্দিনের রসায়ন নজর কেড়েছে। বিশেষ করে এ জুটির চুম্বন দৃশ্য এখন নেটদুনিয়ায় ভাইরাল, যা নিয়ে শুরু হয়েছে জোর চর্চা। অনেকে সিনেমাটির প্রযোজক কঙ্গনা রাণৌতকে নিয়ে ট্রল করছেন। নওয়াউদ্দিনকে উদ্দেশ্য করে অনেকে বলছেন, ‘নওয়াজউদ্দিনের কাছে আর কি আশা করা যায়।’

নেটিজেনদের একজন লিখেছেন, ‘এটি খুবই নোংরা। সিনেমাটির শুটিং যখন শুরু হয়, সম্ভবত তখন অবনীতের বয়স ছিল ২০ বছর। ট্রেলারে অবনীতকে অত্যন্ত যৌন আবেদনময়ী রূপে দেখানো হয়েছে।’

আরেকজন লিখেছেন, ‘কি খারাপ অবস্থা।’ অন্যজন লিখেছেন, ‘আমি বাকরুদ্ধ।’ তবে নেটিজেনদের অনেকে চুম্বন দৃশ্যকে স্বাভাবিকভাবে দেখছেন। তারা অতীতের বেশ কিছু ঘটনা সামনে এনেছেন।

রোমান্টিক-কমেডি ঘরানার ‘টিকু ওয়েডস শেরু’ সিনেমায় উঠে এসেছে দুই বিপরীত মেরুর মানুষের এক হওয়ার গল্প। মুম্বাই যাওয়ার স্বপ্ন ভোপাল শহরে বেড়ে ওঠা টিকুর (অবনীত), বলিউডের নায়িকা হতে চায় সে। স্বপ্নপূরণের টার্গেটে বয়সে বড় শেরুকে বিয়ে করতে রাজি হয়ে যায় সুন্দরী টিকু। লোকের চোখে এ যেন ঠিক ‘বাঁদরের গলায় মুক্তোর মালা।’ অন্যদিকে ইন্ডাস্ট্রিতে বছরের পর বছর স্ট্রাগল করেও জুনিয়র আর্টিস্ট রয়ে যায় শেরু।

চলতি বছরের ফেব্রুয়ারিতে সিনেমাটির শুটিং শেষ করেন নওয়াজ-অবনীত। প্রযোজক কঙ্গনার সঙ্গে কাজ করে মুগ্ধ নওয়াজ। তার কথায়, ‘কঙ্গনা দুর্দান্ত প্রোডিউসার। প্রজেক্টের সঙ্গে উনি একান্ত হয়ে থাকেন। কারও কোনো সমস্যা হলে তা দ্রুত সমাধান করে দেন। সবার খেয়াল রাখেন।’

প্রসঙ্গত, সাই কবির পরিচালিত এ সিনেমায় আরও অভিনয় করেছেন, জাকির হোসেন, বিপিন শর্মা, মুকেশ এস ভাট প্রমুখ। আগামী ২৩ জুন সিনেমাটি মুক্তির কথা রয়েছে।

Leave A Reply

Your email address will not be published.