ঢাবি ছাত্রী ধর্ষণের প্রতিবাদে বরিশালে বিক্ষোভ

0 177

বরিশাল প্রতিনিধি: রাজধানী কুর্মিটোলায় ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রী ধর্ষণের ঘটনায় বরিশালে বিক্ষোভ মিছিল ও প্রতিবাদ মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়েছে।

মঙ্গলবার (৭ জানুয়ারি) বেলা ১১টায় নগরের অশ্বিনী কুমার টাউন হলের সামনে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ছাত্রী ধর্ষণের সঙ্গে জড়িতদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানিয়ে প্রতিবাদ সমাবেশের আয়োজন করে সমাজতান্ত্রিক ছাত্র ফ্রন্ট ও সমাজতান্ত্রিক মহিলা ফ্রন্ট বরিশাল জেলা কমিটি।

সমাজতান্ত্রিক ছাত্রফ্রন্ট বরিশাল জেলা কমিটির সাধারণ সম্পাদক মোজাম্মেল হক সাগরের সভাপতিত্বে প্রতিবাদী সমাবেশে বক্তব্য রাখেন বাসদ বরিশাল জেলা শাখার সদস্য সচিব ডা. মনিষা চক্রবর্তী, মহিলা পরিষদ বরিশাল জেলা কমিটির সাধারণ সম্পাদক পুষ্প চক্রবর্তী, কমরেড বদরুদ্দোজা সৈকত, অ্যাডভোকেট শাহিদা তালুকদার, শিশু কিশোর সংগঠক মীম আক্তার, মানসুর আক্তার লামিয়া, সমাজতান্ত্রিক ছাত্র ফ্রন্ট অমৃত লাল দে কলেজ শাখার সাইফুল, পলিটেকনিক কলেজ শাখার কৌশিক বেপারী, বিএম কলেজ শাখার হাফিজুর রহমান রাকিব, মহিলা ফ্রন্ট বরিশাল বরিশাল জেলা শাখার সদস্য সেতারা বেগমনহ অনেকে।

প্রতিবাদ সমাবেশে বক্তারা বলেন, আজ ওর সাথে হয়েছে কাল আমার সঙ্গে হবে না এর নিশ্চয়তা কি? আমাদের নিরাপত্তা নেই। শুধু আমারই নয় বাংলাদেশের প্রত্যেকটি নারী আজ নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছেন। যেখানে বাংলাদেশের রাজধানী ঢাকায় দেশের সর্বোচ্চ বিদ্যাপিঠ এর ছাত্রী ধর্ষণের শিকার হয় সেখানে দেশের জেলা উপজেলার নারীরা কোথায় নিরাপদ? ভবিষৎ প্রজন্মের সামনে আগামীতে অসনিসংকেত বিরাজ করছে।

দেশে প্রতিনিয়তই একের পর এক নারী নির্যাতন, ধর্ষণ, হত্যা বেড়েই চলছে। সরকার ও প্রশাসনের ব্যর্থতার কারণে নারীরা বার বার ধর্ষণের শিকার হচ্ছে। বিচারহীনতার সংস্কৃতির কারণে ধর্ষকরা আরো বেপরোয়া হয়ে উঠেছে। ধর্ষকদের গ্রেফতার ও দৃষ্টান্ত মূলক শাস্তি দিতে সরকার পুরোপুরি ব্যর্থ হচ্ছে।

বক্তারা বলেন, ১০ জানুয়ারি থেকে মুজিব বর্ষ ও মুক্তিযুদ্ধের ৫০ বছর পূর্তির ক্ষণ গণনা শুরু করবে সরকার। কিন্তু মুজিব বর্ষের ক্ষণ গণনা না করে সরকারের শাসন আমলে ধর্ষণ, খুন গুমের গণনা করার আহবান জানান।

প্রধানমন্ত্রীকে উদ্দেশ্য করে তারা বলেন, মুক্তিযুদ্ধের কথা বলে ধর্ষকদের শাস্তি থেকে মুক্তি দেওয়া হয়, দুর্নীতি থেকে ছেড়ে দেওয়া হয়। ধর্ষণ, খুন, করে উন্নয়নকে জায়েজ করা যাবেনা বলে হুঁশিয়ারি দেন তারা।

পুলিশ সপ্তাহে প্রধানমন্ত্রী বলেছেন, ‘পুলিশ জনগণের আস্তা অর্জন করতে পেরেছে। কিন্তু পুলিশ জনগণের নয় সরকারের আস্তা অর্জন করেছে। কেননা তারাই সরকারকে ক্ষমতায় টিকিয়ে রেখেছে বলে মন্তব্য করেন বক্তারা।

বক্তারা আরও বলেন, ২০১৬ সালের ২০ মার্চ কুমিল্লা ভিক্টোরিয়া কলেজে ইতিহাস বিভাগে দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্রী সোহাগী জাহান তনুকে হত্যা করা হয়। আজও সেই মামলার বিচার হয়নি। কুমিল্লা ক্যান্টনমেন্টের ভিতরে পাওয়া যায় তার মরদেহ।

এ সময় বক্তারা গণপ্রতিরোধ গড়ে তুলে, ধর্ষণের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা না নেওয়াদের বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়ানোর আহবান জানান। পাশাপাশি তারা সরকারের প্রতি আহবান জানিয়ে বলেন, বিশেষ ট্রাইব্যুনাল গঠন করে নারী নির্যাতন ও ধর্ষণের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা গ্রহণ করার দাবি জানান।

Leave A Reply

Your email address will not be published.

x