ধামইরহাটে একই দিনে দুই মাদরাসা শিক্ষার্থী ধর্ষিত আটক ২

0 40

ধামইরহাট (নওগাঁ) প্রতিনিধি : নওগাঁর ধামইরহাটে একই দিনে দুই মাদরাসার শিক্ষার্থী ধর্ষিত হয়েছে। স্থানীয়দের সহযোগিতায় থানা পুলিশ দুই ধর্ষককে আটক করে নওগাঁ কোর্ট হাজতে প্রেরণ করে। এ বিষয়ে ধামইরহাট থানায় ৩১ অক্টোবর রাতে ৩৭ ও ৩৮ নং পৃথক দুটি ধর্ষন মামলা দায়ের করা হয়েছে।
থানার অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, ৩১ অক্টোবর উপজেলা বড়থা ডি.আই ফাযিল মাদরাসার ৭ম শ্রেনির শিক্ষার্থী কাজীপুর গ্রামের আফাজ উদ্দিনের মেয়ে (১৩) দুপুর ১২ টায় মাদরাসা ছুটির পরে বাড়ী আসার পথে বড়থা-কাজিপুর বিশাল ধান ক্ষেতের মাঠে বড়থা গ্রামের আ. ছাত্তারের ছেলে হেলাল হোসেন (২৫) তাকে একা পেয়ে উপর্যুপরি ও জোর পূর্বক ধর্ষণ করে। এ সময় মেয়েটির চিৎকার শুনে জনৈক কৃষক এগিয়ে আসলে ধর্ষক পালিয়ে যায় ভিকটিম প্রাণভয়ে বাড়ি এসে জ্ঞান হারিয়ে ফেলে। পরে স্থানীয় বাচ্চু ডাক্তারের প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে জ্ঞান ফিরলে মেয়েটি তার পরিবারকে ঘটনার বিষয় জানালে পরিবার থানা পুলিশে খবর দেয়। থানা পুলিশ স্থানীয়দের সহযোগিতায় ধর্ষক হেলাল সহ ভিকটিমকে রাত ৮ টার দিকে থানায় নিয়ে আসে এবং ভিকটিমের মা ফেরদৌসি বাদি হয়ে ধামইরহাট থানায় ধর্ষনের মামলা দায়ের করে।
এদিকে উপজেলার ইসবপুর ইউনিয়নের বৈদ্যবাটি এলাকায় ৩১ অক্টোবর বেলা ১১ টার দিকে জনৈক মৃত প্রতিবেশিকে দেখতে যায় সাহাপুর মাদরাসার ৯ম শ্রেনির শিক্ষার্থী কাইছুর রহমানের মেয়ে (১৭)। এ সময় মেয়েটিকে একা পেয়ে একই গ্রামের সাবের আলীর ছেলে মাহফুজুর রহমান (২৮) প্রতিবেশীর বাড়িতে কৌশলে ডেকে নিয়ে প্রতিবেশীর ঘরের ভেতর জোর পূর্বক ধর্ষন করে। মেয়েটির চিৎকারে স্থানীয়রা ধর্ষক মাহফুজুরকে হাতে নাতে আটক করে থানা পুলিশে খবর দেয়। থানা পুলিশ তাদের আটক করে থানায় নিয়ে আসলে ভিকটিমের মা মুরশিদা বেগম ধর্ষকের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করে। ধামইরহাট থানার পুলিশ পরিদর্শক তদন্ত মাহবুব আলম জানান, পৃথক দুটি ধর্ষনের বিষয়ে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে ধর্ষনের সত্যতা আসামীরা স্বীকার করেছেন, এবং তাদের কোর্টে চালান দেওয়া হয়েছে।

 

ধামইরহাটে জাতীয় যুব দিবস পালিত
ধামইরহাট (নওগাঁ) প্রতিনিধি : নওগাঁর ধামইরহাটে জাতীয় যুব দিবস পালিত হয়েছে। দিবসটি উপলক্ষ্যে শুক্রবার সকাল ১০ টায় উপজেলা পরিষদ চত্বর থেকে একটি র‌্যালী উপজেলার প্রধান সড়কগুলো প্রদক্ষিণ শেষে উপজেলা অডিটোরিয়ামে ইউএনও গনপতি রায়ের সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় মিলিত হয়। সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ মন্ত্রনালয়ের সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি মো. শহীদুজ্জামান সরকার এম.পি। এ সময় উপজেলা চেয়ারম্যা আজাহার আলী, জেলা তথ্য কর্মকর্তা আবু সালেহ মো. মাসুদুল ইসলাম, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান সোহেল রানা, সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান দেলদার হোসেন, উপজেলা যুব উন্নয়ন কর্মকর্তা হারুন অর-রশিদ প্রমুখ। অনুষ্ঠানে ৯ জনকে ৬ লাখ ৭০ হাজার টাকার যুবঋন প্রদান করা হয়।

Leave A Reply

Your email address will not be published.

x